ওজন কমিয়ে বডি শেইপ ফিরে পাওয়ার ৪ ধরণের ব্যায়াম!

ওজন কমিয়ে বডি শেইপ ফিরে পাওয়ার উপায়!

ওজন কমিয়ে বডি শেইপ ফিরে পেল একজন

একবার আপনার ওজন হ্রাস হয়ে গেলেই কিন্তু আপনার শরীরের সঠিক শেইপ ফিরে আসে না। চামড়ার নিচের বাড়তি ফ্যাট কমে যাওয়ার কারণে চামড়া ঝুলে পড়ে। যার কারণে ওজন কমানোর পরও আপনার শরীর ফিট হয় না। ঝুলে যাওয়া চামড়ার কারণে দেখতেও খারাপ লাগে। আজকে আমরা আপনাদের কিছু সহজ এবং কার্যকর টিপস দিবো যার সাহায্যে ওজন কমিয়ে বডি শেইপ ফেরত পাবেন এবং আপনার ঝুলে পড়া স্কিন টানটান হবে।

ওজন কমিয়ে বডি শেইপ ফিরে পাওয়ার উপায় 

ওজন কমানোর পড় শরীরের বিভিন্ন অংশের যেমন বাহু, পা, ঘাড়, চিবুক এবং অ্যাবসের চামড়ার নিচের বাড়তি ফ্যাট কমে যাওয়ার কারণে চামড়া ঝুলে পড়ে। যার ফলে ওজন কমানোর পড়ও শরীর তার সঠিক শেইপ ফিরে পায় না। চলুন জেনে নেই কিভাবে ঝুলে যাওয়া স্কিন টাইট করবেন।

বাহুর ব্যায়াম 

আপনি যখন ওজন হ্রাস করেন, তখন আপনার বাহুর ত্বক ঝরঝরে হয়ে যায়। চামড়া ঝুলে পড়ে এবং দেখতে বাজে লাগে। এই ঝুলে পড়া চামড়া ঠিক করতে ওভারহেড স্ট্রেচেস (Overhead stretches) করতে পারেন। এই ব্যায়ামটি ঝুলে যাওয়া চামড়া ঠিক করে বাহুর নিখুঁত আকার দিতে সহায়তা করে। চলুন জেনে নেই কিভাবে করবেন ওভারহেড স্ট্রেচ।

১. প্রথমে একটি সরু স্থানে একেবারে সোজা হয়ে বসুন এবং উভয় হাতে ডাম্বেল (Dumbbell) ধরে রাখুন।

২. এবার ২ হাত সামনের দিকে নিয়ে হাতের তালু দিয়ে সম্মুখ দিকে মুখ করুন।

৩. এখন আস্তে আস্তে ডাম্বেলগুলো সোজা উপরে তুলুন যাতে ডাম্বেলগুলো আপনার মাথার উপরে থাকে।

৪. আপনার কনুই বাঁকা করুন এবং আপনার হাত আপনার কানের  পেছনে রাখুন।

৫. এভাবে ৫ থেকে ১০ সেকেন্ড ধরে রাখুন তারপর আস্তে আস্তে ছেড়ে দিন।

৬. এভাবে দিনে ১০-১২ বার করতে পারেন। ওজন কমানোর পড় নিয়মিত এই ব্যায়ামটি করলে আপনার বাহুর ঝুলে পড়া ত্বক সঠিক শেইপ ফিরে পাবে।

পায়ের ব্যায়াম 

পায়ের ব্যায়াম

ফ্যাট হ্রাস বেশিরভাগ সময় অভ্যন্তরের উরুকে বেশি প্রভাবিত করে। পায়ের উরুর চামড়ার নিচের বাড়তি ফ্যাট কমে গিয়ে চামড়া ঝুলে পড়ে। বেশ কয়েকটি ব্যায়াম রয়েছে যা আপনার উরুর পেশীগুলোকে টানটান করতে সহায়তা করতে পারে।

১. প্রথমে কনুইয়ের উপর ভর করে উপুড় হয়ে শুতে হবে।

২. এবার আপনার বাম পা-টি সোজা করুন এবং আপনার ডান পাটি ৯০-ডিগ্রি  কোণে রেখে আপনার বাম পায়ের সামনে রাখুন।

৩. এখন, আপনার বাম পাটি সোজা রাখুন এবং আস্তে আস্তে এটি উপরে তুলুন যতক্ষণ না আপনি নিজের অভ্যন্তরের উরুতে কিছুটা প্রসারিত অনুভব করেন।

৪. এভাবে ৫ সেকেন্ড থাকুন তারপর আবার আগের অবস্থানে ফিরে আসুন।

৫. এটি ১০ ​​বার করুন এবং তারপরে আপনার বাম পাতে যান। যদি আপনার অভ্যন্তরের উরুর ত্বক খুব বেশি ঝুলে যায় তবে আপনি সপ্তাহে চারবার এই অনুশীলনটি করতে পারেন।

ঘাড় ও চিবুকের ব্যায়াম

ঘাড় ও চিবুকের বাড়তি মেদ কেওই পছন্দ করে না। ওজন কমানোর পরও অনেকসময় ঘাড় ও চিবুকের বাড়তি মেদ কমে না। তখন দেখতে আরও বাজে দেখা যায়। তাই আজকে আমরা আপনাদের কিছু কার্যকরী ব্যায়াম দেখাবো যা ডাবল চিবুক ও ঘাড়ের বাড়তি মেদ থেকে মুক্তি পেতে সাহায্য করতে পারে এবং এটিকে নির্মূল করার জন্য নিয়মিত সেগুলি করা সবচেয়ে কার্যকর উপায়। ৩০ দিনের মধ্যে এ থেকে মুক্তি পেতে এই ৭ টি ব্যায়াম নিয়মিত করুন!

১. প্রথমে সোজা দাঁড়িয়ে মাথা পেছনে কাত করে সিলিংয়ের দিকে তাকান।

২. লক্ষ্য রাখতে হবে ঘাড়ে যেন বেশি টান না পরে।

৩. এবার আপনার মুখটি খুলুন এবং বন্ধ করুন, ধীরে ধীরে আপনার দাঁতগুলো একসাথে স্পর্শ করুন।

৪. লক্ষ্য করুন আপনি আপনার চিবুকের পেশীগুলোতে কিছুটা টান অনুভব করতে পারছেন।

৫. এই অনুশীলনটি দিনে ৫ থেকে ১০ বার পুনরাবৃত্তি করুন দেখবেন কার্যকর ফলাফল পাবেন।

অ্যাবসের ব্যায়াম

ওজন কমানোর পর অ্যাবস অর্থাৎ পেটের অঞ্চল সবচেয়ে বেশি ঝুলে যায়। ওজন কমিয়ে বডি শেইপ আগের মতো হয় না।  এখন কিছু কার্যকরী ব্যায়াম দেখাবো যার সাহায্যে অ্যাবসের ঝুলে পরা স্কিন সঠিক শেইপ ফিরে পাবে।

১. প্রথমে ৯০ ডিগ্রি কোণে আপনার হাঁটু বাঁকিয়ে পিছনের দিকে শুয়ে পরুন।

২. এবার আপনার মাথার পিছনে ঘাড় বাঁকানো ছাড়াই আপনার হাত রাখুন।

৩. এবার আস্তে আস্তে আপনার মাথাটি একবার উপরের দিকে তুলুন তারপর কিছুক্ষন রেখে মেঝেতে ছেড়ে দিন।

৪. এভাবে পাঁচ সেকেন্ড ধরে তারপর আপনার আগের অবস্থানে ফিরে আসুন।

৫. ভালো ফলাফলের জন্য প্রতিদিন আপনি এই ব্যায়ামটি ১০ থেকে ২০ বার করতে পারেন।

কিছু টিপস

কোন ধরনের ব্যায়াম করার পূর্বে অবশ্যই বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিতে হবে।  প্রশিক্ষক বা বিশেষজ্ঞের পরামর্শ এবং দিকনির্দেশনা আপনাকে সঠিক অঙ্গভঙ্গিতে সমস্ত অনুশীলন সম্পাদন করতে সহায়তা করবে এবং কার্যকর ফলাফল দিবে।

নিয়মিত ব্যায়ামগুলো করলে ওজন কমিয়ে বডি শেইপ ফিরে পেতে পারেন। নিজের খেয়াল রাখুন সুস্থ্য সুন্দর থাকুন।

ছবি- সংগৃহীত: সাটারস্টক

146 I like it
40 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...

escort bayan adapazarı Eskişehir bayan escort