মাছের কিমার পুর ভরা সমুচা পিঠা - Shajgoj

মাছের কিমার পুর ভরা সমুচা পিঠা

beef-samosas_5977-680x450

শুধু বাচ্চারা কেন, অনেক বড়রাও আছে যারা সহজে মাছ খেতে চায় না। যারা মাছ খাওয়া নিয়ে তালবাহানা করে তাদেরকে ও একটু সময় নিয়ে আর বুদ্ধি খাটালে মাছ খাওয়ানো যেতে পারে। সেটা কীভাবে? সেই রেসিপি নিয়েই আজকে হাজির হয়েছি। আমার আজকের রেসিপি টি হচ্ছে – মাছের কিমার পুর ভরা সমুচা পিঠা।

ত্রিকোণা সমুচার শেইপে তৈরি এই মজার পিঠাটি বানাতে আমাদের যা যা লাগবে –

(১) যেকোন বড় মাছ যেটার কাঁটা ছাড়াতে আপনার কম কষ্ট হবে (রুই / শোল / ভেটকি / কাতলা)

(২) পৌনে এক চা চামচ হলুদ গুঁড়ো

(৩) দেড় চা চামচ জিরে গুঁড়ো

(৪) ২টি কাঁচামরিচ বাটা

(৫) ২ চা চামচ রসুন বাটা

(৬) পৌনে এক চা চামচ আদা বাটা

(৭) ২ চা চামচ পেঁয়াজ বাটা

(৮) ৩টা মাঝারি সাইজের পেঁয়াজ কুঁচি করে কাটা

(৯) ৪-৫টি কাঁচামরিচ (বাড়াতে/কমাতে পারেন আপনার ইচ্ছেমত)

(১০) ৩ কাপ চালের গুঁড়ো

(১১) লবণ (স্বাদ অনুযায়ী)

(১২) ভাজার জন্য তেল

(১৩) মাছ সিদ্ধ করার জন্য পানি

[picture]

কীভাবে বানাবো ?

প্রথমে হাড়িতে ২ কাপ পানি গরম করে নিন। এবার আরেকটি হাড়িতে ৩ কাপ চালের গুঁড়ো, দেড় চা চামচ পেঁয়াজ বাটা , এক চা চামচ রসুন বাটা , আধা চা চামচ আদা বাটা , ২টি কাঁচামরিচ বাটা , ১/৪ চা চামচ হলুদ গুঁড়ো মিশিয়ে নিন এবং প্রয়োজন মতো গরম পানি ঢেলে ভালো করে মেখে ডো বানিয়ে নিন। ডো টা একটা পরিষ্কার পাতলা কাপড় দিয়ে ঢেকে চুলার পাশে রেখে দিন। এবার মাছের টুকরোগুলো অল্প পানিতে সিদ্ধ করে নিন , সিদ্ধ করার সময় গরম পানিতে দিবেন পরিমাণ মতো লবন , আধা চা চামচ হলুদ গুঁড়ো , আধা চা চামচ পেঁয়াজ বাটা , ১ চা চামচ রসুন বাটা , ১/৪ চা চামচ আদা বাটা , আধা চা চামচ জিরে গুঁড়ো। মাছ সিদ্ধ হয়ে পানিটা শুকিয়ে এলে মাছ নামিয়ে ঠাণ্ডা করে কাঁটা ছাড়িয়ে নিন। কড়াইতে ১ চা চামচ তেল দিয়ে তাতে কুচানো পেঁয়াজ আর মরিচ কুঁচি দিয়ে হালকা লালচে করে ভেজে নিন , এবার তাতে কাঁটা ছাড়ানো মাছ , সামান্য লবন আর ১ চা চামচ জিরে গুঁড়ো দিয়ে এক মিনিট ভেজে নামিয়ে নিন। তৈরি হয়ে গেল কাঁটা ছাড়ানো মাছের কিমা। এই কিমা তৈরির সময় কিন্তু বেশি তেল ব্যবহার করা যাবে না , তা না হলে তেলের কারণে পিঠার ভাঁজ খুলে যাবে এবং পিঠা ভাজার সময় ভিতরের মাছের কিমার পুর বেরিয়ে যাবে ।

Samosa-Pastry-7

 এবার ডো নিয়ে একটা একটা করে রুটি বেলুন এবং গোল রুটিটাকে আড়াআড়ি আর লম্বালম্বিভাবে চার টুকরো করে কেটে নিন। একটি টুকরো হাতে নিয়ে তার ভিতরে অল্প করে মাছের কিমা ভরে ত্রিকোণা আকৃতিতে ভাঁজ করে নিন এবং মুখগুলো ভালোভাবে বন্ধ করে দিন। আমি অবশ্য বাজারে যে ত্রিকোণাকার পিঠা বানানোর ছাঁচ কিনতে পাওয়া যায় তার ভিতরে রেখে চাপ দেই , এমনিতেই সুন্দর ত্রিকোণাকার সমুচার শেইপ হয়ে যায়। এবার একটা একটা করে মাছের কিমার পুর ভরে সমুচা পিঠাগুলো তৈরি করে নিন এবং কড়াইয়ে তেল গরম করে ডুবো তেলে পিঠাগুলো সোনালি করে ভেজে নিন।

20170522_194717

গরম গরম পরিবেশন করুন। আশা করি বাসায় সবাই বানাতে চেষ্টা করবেন। আর হ্যা , যদি বাসায় চালের গুঁড়ো না থাকে তাহলে ময়দা দিয়েও করতে পারেন। তবে হ্যা , চালের গুঁড়ো ছাড়া কি আর পিঠা হয়?

সবাই ভালো থাকবেন, সুস্থ থাকবেন।

ছবি – যিম্বকিচেন ডট কম 

রেসিপি – ফারহানা প্রীতি

1 I like it
0 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...