শীতে ত্বকের কোমলতা ও উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে কলার ৫টি ফেইস প্যাক! শীতে ত্বকের কোমলতা ও উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে কলার ৫টি ফেইস প্যাক!

শীতে ত্বকের কোমলতা ও উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে কলার ৫টি ফেইস প্যাক!

লিখেছেন - নাইমা আক্তার জানুয়ারী ১, ২০১৯

গ্রীষ্মের দিন গুলো বড় হওয়াতে আমাদের ত্বককে প্রচুর সান ট্যানিং এবং ড্যামেজ সহ্য করতে হয়। আর এই ত্বক শীতের শুষ্ক হাওয়ায় হয়ে যায় আরো শুষ্ক ও রুক্ষ। তাই শীতের এই শুষ্কতা ও রুক্ষতা থেকে বাঁচতে চাইলে আমাদের উচিত ত্বকের প্রয়োজনীয় যত্ন নেওয়া। এ যত্নটি নেওয়া যেতে পারে কলার ফেইস প্যাক, অ্যালোভেরা জেল, ইত্যাদি দিয়ে যার ফলে শীতে ত্বকের কোমলতা ও উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি পাবে।

“Winter is a season of recovery and preparation.”

– Paul Theroux

আমেরিকার ট্রাভেল রাইটার ও নভেলিস্ট পল থেরক্স কিন্তু ঠিক কথাই বলেছেন। যাই হোক, শীতে ত্বকের কোমলতা ও আদ্রতা ধরে রাখতে আমরা প্রচুর কেমিক্যাল জাতীয় পণ্য ব্যবহার করি, যেমন লোশন, ক্রিম ইত্যাদি। কিন্তু প্রাকৃতিকভাবেই যদি ত্বকের কোমলতা আরো বৃদ্ধি পায় তাহলে কেমন হয়? হ্যাঁ, আপনি খুব সহজেই ত্বকের কোমলতা বৃদ্ধি করার পাশাপাশি ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করতে পারেন খুবই সহজলভ্য একটি প্রাকৃতিক উপাদানে, আর এই উপাদানটি হলো কলা। আপনাদের জন্য আজ থাকলো শীতে ত্বকের কোমলতা বৃদ্ধিতে কলার তৈরি ৫টি ফেইস প্যাক। তাহলে চলুন প্যাকগুলো দেখে নেয়া যাক!

 

১. মধু ও কলার ফেইস প্যাক

উপকরণ

  • ১ টি পাকা কলা
  • ১ টেবিল চামচ মধু
  • ১ টেবিল চামচ অলিভ অয়েল

ত্বকের কোমলতা ও উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে কলা, অলিভ অয়েল ও মধুর ফেইস প্যাক - shajgoj.com

পদ্ধতি

প্রথমে কলা ছিলে নিয়ে ছোট ছোট টুকরো করে নিন। এবার এতে মধু ও অলিভ অয়েল মিক্স করুন। সবগুলো উপাদান ভালোভাবে মেশানো হয়ে গেলে মুখে লাগিয়ে রাখুন প্রায় ১০-১৫ মিনিট। তারপর নরমাল পানি দিয়ে ভালো করে ধুয়ে নিন।

এই প্যাকটি আপনার ত্বক ময়েশ্চারাইজড করবে এবং শীতের কারণে ত্বকে তৈরি এজিং ইফেক্ট-গুলো কমিয়ে দেবে। এটা ভিটামিন-ই এর মাধ্যমে ত্বকের স্বাস্থ্য বজায় রেখে ত্বক উজ্জ্বল করে।

২.  মাখন ও কলার ফেইস প্যাক

উপকরণ

  • ১ টি পাকা কলা
  • ২ টেবিল চামচ সাদা মাখন

ত্বকের কোমলতা ও উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে কলা এবং মাখনের ফেইস প্যাক - shajgoj.com

পদ্ধতি

প্রথমে কলা ম্যাশ করে একটি স্মুথ পেস্ট তৈরি করুন। এবার মাখন নিয়ে এটাকে হুইপ করতে থাকুন যতক্ষণ পর্যন্ত না এটি স্মুথ হয়। বাটার হাতের কাছে না থাকলে আপনি চাইলে ফুল ফ্যাট মিল্ক ও ইউজ করতে পারেন। এবার কলার পেস্ট ও হুইপড মাখন ভালো করে মিশিয়ে নিন এবং প্যাকটি পুরো মুখে অ্যাপ্লাই করুন। এই প্যাকটি ড্রাই স্কিনের জন্য একটু বেশি হাইড্রেটিং হবে। ১৫-২০ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন।

৩. ভিটামিন-ই ও কলার ফেইস প্যাক

উপকরণ

  • ১ টি পাকা কলা (স্মুথ পেস্ট না হওয়া পর্যন্ত ম্যাশ করে নিতে হবে)
  • ১ টি  ভিটামিন ই ক্যাপসুল (ক্যাপসুলের ভেতরের ভিটামিন-ই অয়েল বের করে নিতে হবে)
  • ১ টেবিল চামচ মধু

ত্বকের কোমলতা ও উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে ভিটামিন-ই, কলা ও মধুর ফেইস প্যাক - shajgoj.com

পদ্ধতি

উপরের সবগুলো উপাদান ভালোভাবে ব্লেন্ড করে নিন। এবার এই প্যাকটি আপনার পুরো মুখে অ্যাপ্লাই করুন। ২০-৩০ মিনিট রেখে ভালো করে প্যাকটি ধুয়ে ফেলুন। আপনি চাইলে এর সাথে চন্দন পাউডার বা গোলাপজলও মিক্স করতে পারেন। এতে আরো হাইড্রেটিং স্কিন পাবেন।

৪. টক দই এবং কলার ফেইস প্যাক

উপকরণ

  • ১ টি পাকা কলা (মসৃণভাবে পেস্ট করে নিতে হবে)
  • ২ টেবিল চামচ টক দই (মসৃণ না হওয়া পর্যন্ত বিট করে নিতে হবে)

ত্বকের কোমলতা ও উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে কলা এবং টক দই এর ফেইস প্যাক - shajgoj.com

পদ্ধতি

কলা ও দই ব্লেন্ড করে নিতে হবে যতক্ষণ পর্যন্ত না একটি স্মুথ পেস্ট তৈরি হয়। তারপর প্যাকটি পুরো মুখে অ্যাপ্লাই করুন এবং ১৫-২০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন।

এই প্যাকটি ত্বক হাইড্রেটেড করার পাশাপাশি ত্বকের সান ট্যানিং দূর করতে সাহায্য করে।

৫. লেবুর রস ও কলার ফেইস প্যাক

উপকরণ

  • ১ টি পাকা কলা
  • ১ টেবিল চামচ লেবুর রস

ত্বকের কোমলতা ও উজ্জ্বলতা আনতে কলা এবং লেবুর রস এর ফেইস প্যাক - shajgoj.com

পদ্ধতি

কলা ছোট ছোট টুকরা করে নিয়ে মসৃণ পেস্ট না হওয়া পর্যন্ত ম্যাশ করতে হবে। এবার এতে লেবুর রস ভালো করে মিশিয়ে নিয়ে পুরো মুখে অ্যাপ্লাই করুন। ১০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন।

 

কলা ভিটামিন এ, বি এবং ই সমৃদ্ধ। এটি স্কিনকে ড্যামেজ হয়ে যাওয়া থেকে রক্ষা করে এবং প্রি-ম্যাচিওর এজিং হওয়া থেকে বাঁচায়। এই শীতে ত্বকের রুক্ষতা দূর করতে এবং উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করতে  সহজলভ্য এই প্রাকৃতিক উপাদানটি আপনার স্কিন কেয়ার রুটিনে যোগ করুন আজই। উপরের ফেইস প্যাকগুলো খুবই অল্প এবং সহজ উপকরণ দিয়ে তৈরি। এর যে কোন একটি বেছে নিন, ভালো ও সুস্থ থাকুন।

 

ছবি- সংগৃহীত: সাজগোজ