ভিট কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপস দিয়ে পার্লারের মতো রেজাল্ট পান ঘরে বসেই!

ভিট কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপস দিয়ে পার্লারের মতো রেজাল্ট পান ঘরে বসেই!

6

কিছুদিন আগে একটা প্রোগ্রামে অ্যাটেন্ড করার জন্য শাড়ির সাথে ম্যাচ করে হাফ হাতা ব্লাউজ পরবো বলে ডিসিশন নিলাম। বিপত্তিটা বাঁধলো তখনই! কারণ আমার হাতে বেশ হেয়ার আছে। যার কারণে আমি সব সময় ফুল হাতা পোশাক পরতাম। এদিকে প্রোগ্রামে শাড়ির সাথে মিলিয়ে কীভাবে ব্লাউজ পরব বুঝতে পারছিলাম না। আবার পার্লারে হট ওয়্যাক্স করা হয় বলে কখনোই সেখানে যাওয়ার কথা ভাবিনি। আমার দ্বিধার কথা শুনে এক বান্ধবী জানালো ভিট কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপস এর কথা। ভিট এর নাম তো আগে থেকেই পরিচিত ছিল। বান্ধবীর পরামর্শে ব্যবহার করে ফেললাম ভিট কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপস। আজ সেই অভিজ্ঞতার কথাই জানাবো আপনাদের। সাথে আরও জানাবো ভিট দিয়ে কীভাবে ঘরে বসেই পার্লারের মতো রেজাল্ট পাবেন।

ভিট নিয়ে কিছু কথা

ভিট এর নাম মার্কেটে এত বেশি পরিচিত যে হেয়ার রিমুভাল ক্রিম বললে সবার আগে মাথায় এই নামটাই আসে। মেয়েরা শরীরের অবাঞ্চিত লোম দূর করার জন্য সবার আগে এটাই বেছে নেয়। অনেক বছর ধরে মেয়েদের ভরসার জায়গায় নাম লিখিয়েছে ভিট। এমনকি দোকানে গেলেও হেয়ার রিমুভাল ক্রিমের নাম আলাদা করে কখনো বলতে হয় না। তাই ভিট যখন নতুন কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপস নিয়ে এসেছে সেটা এক রকম ব্লেসিংসই বলা যায়! আর ভিটের ঘরে বসেই ওয়্যাক্সিং করার এ সুযোগ করে দেওয়ায় সবচেয়ে বেশি খুশি সম্ভবত মেয়েরাই হয়েছে! কারণ পার্লারে যাওয়ার ঝামেলা এখন নেই। সাথে এক্সপার্ট ওয়েতে ঘরে বসেই যে কোনো সময় ক্লিন করে ফেলা যাবে হেয়ার! আর টাকা বেঁচে যাওয়ার বিষয়টি তো আছেই!

ভিট কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপস

ভিট কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপস নিয়ে কী কী ক্লেইম করছে ভিট

ভিট ক্লেইম করছে তাদের নতুন কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপসটি ইজি জেল বেইজড। এতে রয়েছে শিয়া বাটার। আর আসাই বেরির খুব সুন্দর ফ্রেগ্রেন্স। যার কারণে স্ট্রিপস থেকে খুব সুন্দর একটি ঘ্রাণ আসে। হেয়ার রিমুভের সাথে সাথে দেয় ময়েশ্চারাইজড স্কিন, দেয় লং লাস্টিং স্মুথনেস। ঠিক পার্লারের মতো! ও হ্যাঁ, এটি ব্যবহার করা নিরাপদ কিনা সেটি বোঝার জন্য বলে দেই, এটি কিন্তু ক্লিনিক্যালি টেস্টেড।

ইজি জেল ফর্মুলা থাকার সুবিধা

  • জেলটুকু শুধু লোমের চারপাশে ভালোভাবে ছড়িয়ে যাবে। স্কিনে আটকে থাকবে না।
  • একদম গোড়া থেকে লোম তুলে ফেলে বলে দীর্ঘ সময় স্কিন স্মুথ থাকে।

কোন স্কিনের জন্য স্যুইটেবল

আমার স্কিন নরমাল। যে কারণে এটি আমার স্কিনে বেশ ভালোভাবে স্যুট করেছে। তবে স্কিন সেনসিটিভ হলেও ব্যবহার করা যাবে। তবে সেক্ষেত্রে প্যাচ টেস্ট করে নেওয়া ভালো।

SHOP AT SHAJGOJ

    একটি প্যাকেটে কী কী রয়েছে?

    ভিট কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপসের এই প্যাকেটে রয়েছে হালকা গোলাপি রঙের ২০টি ওয়্যাক্স স্ট্রিপস। আরও আছে পারফেক্ট ফিনিশ ওয়াইপস।

    প্যাকেজিং

    ভিট ওয়্যাক্স স্ট্রিপসের এই প্যাকেটটির কালার হালকা ও গাঢ় গোলাপির মিশেল। কালারটি বেশ আই সুদিং। বেশিরভাগ মেয়ের পছন্দের রঙ গোলাপি বলে রঙটাও বেশ আকর্ষণ করে মেয়েদের। এছাড়া প্যাকেজিংটা বেশ ট্রেন্ডি, খুবই হালকা। সহজেই ক্যারি করা যায়। চাইলে ট্র্যাভেল করার সময় আপনি ব্যাগেও নিতে পারেন।

    ভিট স্ট্রিপস খোলা

    দাম

    জানলে খুশি হবেন যে এর দামটাও কিন্তু একদম হাতের নাগালে! ২০টা স্ট্রিপস পেয়ে যাচ্ছেন মাত্র ৩৫০ টাকায়! পার্লারে ওয়্যাক্সিং এর খরচ তো এর তুলনায় অনেক বেশি। অর্থাৎ বাড়িতে বসেই পার্লারের মতো ফুল বডি ওয়্যাক্সিং এক্সপেরিয়েন্স পাচ্ছেন মাত্র ৩৫০ টাকায়!

    যেভাবে ব্যবহার করবেন

    ভিট ওয়্যাক্স স্ট্রিপস ব্যবহারের আগে অবশ্যই প্যাকেটের গায়ে লেখাটি ভালো করে পড়ে নিতে হবে। ওয়্যাক্সিং এর আগে অবশ্যই স্কিন ভালো করে ক্লিন করে শুকিয়ে নিতে হবে। যতক্ষণ স্ট্রিপসের স্টিকিনেস আছে ততক্ষণ একটি স্ট্রিপ বারবার ব্যবহার করা যাবে। আমি হাতের জন্য ব্যবহার করেছিলাম। আমার দুটো স্ট্রিপসেই পুরো হাতের হেয়ার ক্লিন হয়ে গিয়েছে। বাকিগুলো রেখে দিয়েছি পরের সময়ের জন্য।

    খোলার সময় স্ট্রিপসগুলো জোরে ঘষার কোনো প্রয়োজন নেই। খুব সহজেই স্ট্রিপস খুলে ফেলা যাবে।

    স্ট্রিপস লাগানো

    মাত্র চারটি উপায়ে স্ট্রিপস খোলা ও ব্যবহারের নিয়ম-

    ১) স্ট্রিপসের উপরের দুই পাশের অর্ধ গোলাকার অংশটুকু দুই পাশ থেকে টান দিয়ে ধীরে ধীরে খুলতে হবে।

    ২) এক পাশের স্ট্রিপস স্কিনের যে পাশে হেয়ার গ্রোথ হয় সে পাশে লাগাতে হবে। স্কিনে লাগানো পাশে ভালোভাবে ঘষতে থাকুন।

    ৩) এবার হেয়ার গ্রোথের উল্টো দিক থেকে দ্রুত স্ট্রিপ টান দিয়ে তুলে ফেলুন।

    ৪) ওয়্যাক্সিং এর পর ওয়াইপস দিয়ে স্কিন ভালো করে ক্লিন করে নিন।

    (প্যাকেটের গায়ে করণীয়সহ ছবি দেওয়া আছে। ভালো করে বোঝার জন্য ছবি দেখেও নির্দেশনা বোঝা যাবে)

     

    স্ট্রিপস তোলা

    বেনিফিটস

    ভিট ওয়্যাক্স স্ট্রিপস ব্যবহারের সবচেয়ে বড় সুবিধা হচ্ছে আনওয়ান্টেড হেয়ার রিমুভ নিয়ে একদমই ভাবতে হয় না। আরও বেনিফিটসের মধ্যে আছে-

    • রুট থেকে ১.৫ মি.মি. পর্যন্ত হেয়ারও এই স্ট্রিপস তুলে ফেলে। তাই স্কিনে শর্ট হেয়ার দেখা যাবে এমন ভাবনা নিয়ে একদম নিশ্চিন্ত থাকুন!
    • ২৮ দিন পর্যন্ত ত্বককে দেয় লং লাস্টিং স্মুথনেস।

    সাবধানতা

    ১) প্যাকেটের গায়ের লেখাটি ভালো করে পড়ুন। ব্যবহারের আগে সকল সাবধানতা ও নির্দেশনা জেনে নিতে হবে।

    ২) হাত, পা, আন্ডারআর্মস এবং বিকিনি লাইনে ব্যবহার করা যাবে।

    ৩) ফেইস, ইনটিমেট এরিয়া বা প্রাইভেট পার্টসে ব্যবহার করা যাবে না।

    ৪) ভেরিকোজ শিরায় (নীল বা বেগুনী হয়ে পায়ের শিরা ফুলে গেলে), কাটা জায়গায়, আঁচিলে, তিলের উপর, শরীরের ভাঙা অংশে, চুলকানিযুক্ত স্থানে, সানবার্ন হয়েছে এমন স্কিনে অথবা এর আগে ওয়্যাক্স করানোর কারণে ইরিটেশন হয়ে থাকলে এই ওয়্যাক্স করা যাবে না।

    ৫) যদি আপনি কোনো মেডিকেশনের মধ্যে থাকেন অথবা স্কিন রিলেটেড কোনো ধরনের ডিজঅর্ডার থাকে, তাহলে স্ট্রিপস ব্যবহারের আগে অবশ্যই চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলে নিতে হবে।

    ৬) বয়স্ক ব্যক্তি, ডায়াবেটিস আছে এমন যে কেউ অথবা ওরাল রেটিনয়েড নিচ্ছেন এমন কেউ এই ওয়্যাক্স করতে পারবেন না।

    ৭) যদি এর আগে কখনো ওয়্যাক্সিং না করে থাকেন তাহলে ভিট সাজেস্ট করছে শুরুতে পায়ে ওয়্যাক্স করার জন্য। পায়ে ওয়্যাক্স করার পর যদি ভালো লাগে তবেই আন্ডারআর্ম বা বিকিনি লাইনের মতো সেনসিটিভ এরিয়াতে ব্যবহার করতে পারবেন।

    হাত ক্লিন করা

    ৮) ব্যবহারের আগে অবশ্যই স্কিন শুকনো ও নন-ইরিটেডেড রাখতে হবে। কোনো ধরনের তেল, ক্রিম বা ডিওডরেন্ট ব্যবহার করা যাবে না।

    ৯) পুরোপুরি ব্যবহারের আগে যে অংশে ব্যবহার করতে চান, সে অংশে প্রোডাক্টের অল্প একটু লাগিয়ে তুলে ফেলুন। যদি ২৪ ঘন্টায় কোনো ধরনের ইরিটেশন না হয়, তাহলে নিয়মিত ব্যবহার করতে পারবেন।

    ১০) যদি ব্যবহারের সময় কোনো ধরনের জ্বালা অনুভব হয়, তাহলে সে মুহুর্তেই স্ট্রিপস টেনে তুলে ফেলুন। পারফেক্ট ফিনিশ ওয়াইপস বা বেবি অয়েল দিয়ে আলতো করে ঘষে নিন। এরপর ঠান্ডা পানি দিয়ে জায়গাটুকু ধুয়ে ফেলুন।

    ১১) যদি বেশ কিছু সময়ের পরও জ্বলুনি ভাব না কমে, তাহলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

    ১২) একই জায়গায় একবারের বেশি ওয়্যাক্স করা যাবে না।

    ১৩) ব্যবহারের পর স্কিন কিছুক্ষণ সেনসিটিভ হয়ে থাকতে পারে। তাই স্ক্র্যাচিং অ্যাভয়েড করুন।

    ১৪) স্ট্রিপস ব্যবহারের ২৪ ঘন্টা পর পর্যন্ত ভিট পরামর্শ দিচ্ছে কোনো ধরনের পারফিউমড প্রোডাক্ট, আর্টিফিশিয়াল ট্যানিং ইক্যুয়েপমেন্ট, সুইমিং বা সানবাথ না করার জন্য।

    ১৫) যদি ফিনিশ ওয়াইপস শেষ হয়ে যায় তাহলে বেবি অয়েলও ব্যবহার করা যাবে। ওয়্যাক্স করার সময় পানি, সাবান বা অ্যালকোহল ব্যবহার করা যাবে না।

    ১৬) শিশুদের নাগালের বাইরে রাখুন।

    ১৭) চোখের সংস্পর্শ থেকে দূরে রাখুন। যদি কোনোভাবে চোখে লেগে যায়, তবে দ্রুত পানি দিয়ে চোখ ধুয়ে নিন এবং চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

    ১৮) বেঁচে যাওয়া স্ট্রিপসগুলো শীতল ও শুকনো জায়গায় রাখুন।

    ভিট কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপস ব্যবহারে আমার অভিজ্ঞতা

    আগেই বলেছি, আমার হাতে হেয়ার একটু বেশি থাকায় ফুল হাতা পোশাক পরতেই সব সময় স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করতাম। পার্লারে গিয়ে ওয়্যাক্সিং করাবো সেই সাহসটা হতো না নানা ধরনের নেগেটিভ কথা শুনেই। পার্লারে হট ওয়্যাক্সিং করানো হয়। যেটি অনেকের ত্বকের জন্যই সহনশীল নয়। তাই আমিও আর রিস্ক নেইনি। কিন্তু ভিটের কথা আলাদা। ভিট হেয়ার রিমুভাল ক্রিম ব্যবহার করতাম বলে বুঝেছিলাম আর যাই হোক ভিট কখনও খারাপ প্রোডাক্ট আনবে না।

    এবার ব্যবহারের পালা। যেহেতু আমি আগে কখনও ওয়্যাক্সিং করিনি তাই শুরুতেই রিস্ক নিতে চাচ্ছিলাম না। আগে হাতের এক অংশে অল্প পরিমাণ স্ট্রিপস লাগিয়ে কিছু হেয়ার তুলে নিলাম। পরে বেবি অয়েল দিয়ে জায়গাটুকু আলতো করে ঘষে নিয়েছিলাম। এবার অপেক্ষা ২৪ ঘন্টার। অপেক্ষা করেছিলাম মূলত স্কিনে কোনো ইরিটেশন হচ্ছে কিনা বোঝার জন্য। একদিন পর পর্যন্ত যখন স্কিনে কোনোরকম প্রবলেম ফেইস করিনি, তখনই দুই হাতে ওয়্যাক্সিং করেছি। ওয়্যাক্সিং শেষে ফিনিশ ওয়াইপস দিয়ে আলতো করে মুছে নিয়েছি।

    সত্যি বলতে আমি প্রথমে বিশ্বাসই করতে পারিনি যে ঘরে বসেও এত পারফেক্টভাবে ওয়্যাক্সিং করা সম্ভব! কারণ শুধুমাত্র পার্লারে নানা ধরনের উপকরণ দিয়ে ওয়্যাক্সিং করায় এমনটি দেখে ও শুনেই আমরা অভ্যস্ত। একদম ঘরে বসেই যখন পার্লারের মতো পারফেক্ট রেজাল্ট পেলাম তখন আর দ্বিতীয়বার পার্লারে যাওয়ার কথা ভাবছিই না!

    বিফর আফটার ওয়্যাক্সিং

    শেষ কথা

    মেয়েদের খুব কমন একটি সমস্যার সমাধান নিয়ে ভিট বাজারে এসেছে এ কথা অস্বীকার করার উপায় নেই। তবে একটা কথা সব সময় মনে রাখতে হবে। সবার স্কিন টাইপ সেইম নয়। ভালোভাবে স্কিন টাইপ এবং স্কিনের প্রবলেমস না জেনে ব্যবহার করার ফলে যদি কোনো সমস্যা হয়, তখন হুট করে ভিটকে দোষী ভাবা মোটেও উচিত হবে না। ভিট তাদের প্যাকেটের গায়ে খুব সুন্দরভাবে ও বিস্তারিত লিখে দিয়েছে কারা এটা ইউজ করতে পারবেন, কারা পারবেন না। তাই সবার আগে ব্যবহারবিধিটা ভালো করে দেখে, জেনে ও বুঝে এরপরই ব্যবহার করুন।

    আশা করি উপরের তথ্যগুলো হেল্পফুল ছিল। এখন আপনার স্কিনের জন্য ভিট কতটুকু স্যুইটেবল সেটা বুঝে সিদ্ধান্ত নেবেন আপনি।

    যদি মার্কেটে গিয়ে ভিট কোল্ড ওয়্যাক্স স্ট্রিপস কেনার সুযোগ না পান, তাহলে ঘরে বসেই অনলাইনে সাজগোজের অ্যাপ বা ওয়েবসাইটে অর্ডার করতে পারেন। এছাড়া স্কিন, হেয়ারসহ যে কোনো অথেনটিক বিউটি প্রোডাক্টের জন্য সাজগোজের দুটো শপ যার একটি যমুনা ফিউচার পার্ক এবং অপরটি সীমান্ত সম্ভারে অবস্থিত সেখান থেকেও কিনতে পারবেন।

    SHOP AT SHAJGOJ

       

      ছবিঃ সাজগোজ

      26 I like it
      6 I don't like it
      পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...