ওয়ার্কআউটের সময় সঠিক টপ ও লেগিং চুজ করছেন তো?

ওয়ার্কআউটের সময় সঠিক টপ ও লেগিং চুজ করছেন তো?

3

বাইরে যাওয়ার সময় আমরা যে আউটফিট পরি, ওয়ার্কআউট করার সময়ও কি একই আউটফিট পরি? একদম নয়! তাহলে ইনার ওয়্যার বা প্যান্ট চুজ করার সময় কেন রেগুলার ওয়্যারই চুজ করবো? ওয়ার্কআউট বা ইয়োগা করার সময় আমাদের কনসার্ন থাকে শরীর বেশি ঘেমে যাচ্ছে কিনা এবং কমফোর্ট হচ্ছে কিনা। কারণ এ দুটো ক্রাইটেরিয়া ফুলফিল না হলে ওয়ার্কআউট করতে মোটেও ভালো লাগবে না। তাই এ সময়ের জন্য যেমন সঠিক টপ সিলেক্ট করা জরুরি, তেমনই জরুরি প্যান্ট বা লেগিং বেছে নেয়া। আজকে আপনাদের দুটো টপ ও লেগিং এর রিভিউ সম্পর্কে জানাবো, যেগুলো ওয়ার্কআউটের সময় আপনি কমফোর্টের সাথে পরতে পারবেন। চলুন তাহলে জেনে নেয়া যাক।

ওয়ার্কআউটের সময় ইয়োগা টপ কেন চুজ করবেন?

বডি ফিট রাখার জন্য আমরা জিমে যাই, পার্কে দৌড়াই অথবা ইয়োগা করি। সবকিছু শেষে আমাদের কনসার্ন থাকে কোন বিষয়ে বলুন তো? হ্যাঁ ঠিক ধরেছেন! ওয়ার্ক আউট শেষে ঘামে ওয়্যার ভিজে গিয়ে অস্বস্তি তৈরি হবে কিনা সেটাই থাকে মূল চিন্তার কারণ। সেই সাথে টাইট ফিটিং আর আনকমফোর্টেবল হওয়ার বিষয় তো আছেই! এছাড়া ওয়ার্কআউটের সময় নরমাল ব্রা পরলে ব্রেস্ট ফুল সাপোর্ট পাবে না। তাই ওয়ার্কআউটের সময় এমন ইনার ওয়্যার চুজ করতে হবে যেন সেটি কমফোর্টেবল হয়, পরার পর ইজিলি বডি মুভমেন্ট করা যায় এবং ঘাম দ্রুত শুকিয়ে যায়।

ওয়ার্কআউটের সময় রাইট টপ চুজ করুন

একেক আউটফিটের সাথে ইনার ওয়্যারও চুজ করতে হয় একেক রকম। বিশেষ করে ফিটনেস ঠিক রাখার জন্য যখন ইয়োগা করা হয় বা জিমে যাওয়া হয়, তখন ফ্লেক্সিবিলিটির দিকে বেশি খেয়াল রাখতে হয়। কারণ ইনার ওয়্যার যদি ফিট না হয়, তাহলে ইয়োগা পোজ দিতে প্রবলেম হবে, এতে মাসল পেইন হতে পারে। ইয়োগা টপ স্পেশালি ইয়োগা ও বিভিন্ন ওয়ার্কআউটের জন্য ডিজাইন করা হয়েছে। তাই এসব টপ পরলে ইয়োগা করার সময় স্ট্রেচ করা যায় এবং কমফোর্ট পাওয়া যায়। আজকে আপনাদের এমনই একটি ইয়োগা টপ এর ফিচার সম্পর্কে জানাবো।

Armela Beyond The Mat Yoga Top

  • এই ইয়োগা টপটি সুপার সফট, ব্রিথেবল ও কমফোর্টেবল
  • এর ফেব্রিক স্ট্রেচেবল হওয়ায় ইজিলি বডিতে ফিট হবে
  • ওয়্যার না থাকার পরও ফাইন শেইপ ও ফুল সাপোর্ট দিবে, যার কারণে এক্সারসাইজ করতে কমফোর্টেবল লাগবে
  • রিমুভেবল চেস্ট প্যাড থাকায় যে কোনো সময় ইজিলি ওয়াশ করা যাবে
  • ওয়াইড শোল্ডার সাপোর্ট দেয়ার কারণে এক্সারসাইজের সময় স্ট্র্যাপ স্লিপ অফ হওয়ার কোনো চান্স নেই
  • ওয়াইড ব্যাক ব্যান্ড আছে, যা দেয় ফুল সাপোর্ট
  • টিনেজার থেকে শুরু করে মধ্য বয়সী নারীরা ইউজ করতে পারবেন
  • ইয়োগা, অ্যারোবিকস করার সময় অথবা দৌড়ানোর সময় ব্রেস্টকে প্রোপার সাপোর্ট দিবে
  • S, M, L, XL, 2XL সাইজে অ্যাভেইলেবল

রিমুভেবল কাপ

ইয়োগা টপ এর সাইজ মেজার করবেন কীভাবে?

সাধারণত রেগুলার ইনার ওয়্যার সিলেক্ট করার জন্য আমরা যেভাবে মেজারমেন্ট করি, ইয়োগা টপের জন্যও একই রুলস ফলো করতে হয়। চলুন জেনে নেই কীভাবে ইয়োগা টপের সাইজ মেজার করবেন-

১) আয়নার সামনে সোজা হয়ে দাঁড়িয়ে একটি ইঞ্চি ফিতা নিয়ে ব্রেস্টের ঠিক নিচ বরাবর শরীরের চারপাশে ঘুরিয়ে মাপ নিয়ে নিন। এক্ষেত্রে ফিতা একদম টাইট ফিটিং হওয়া যাবে না। একটি আঙুল ভিতরে ঢুকতে পারে এতটুকু পরিমাণ জায়গা রাখতে হবে।

২) যে মাপটি পাওয়া যাবে সেটি আপনার আন্ডারবাস্ট নম্বর। সংখ্যাটি যদি জোড় হয়, তাহলে এর সাথে ৪ যোগ করুন। বিজোড় হলে যোগ করুন ৫। যে যোগফল পাওয়া যাবে সেটি হবে আপনার ব্যান্ড সাইজ।

 

৩) এবার ফিতাটি ব্রেস্টের ফুলার অংশে ধরুন। এখন যে সংখ্যাটি পাওয়া যাবে সেটি আপনার আপার বাস্ট সাইজ। বাস্ট থেকে ব্যান্ড সাইজ বাদ দিলে যে সংখ্যা আসবে, সেটি হবে কাপ সাইজ।

৪) একটি উদাহরণ দিয়ে আমি সহজে বুঝিয়ে দিচ্ছি। ধরুন, আপনার আন্ডারবাস্ট নম্বর ২৯। বিজোড় বলে এর সাথে যোগ করা হলো ৫। এবার ব্যান্ড সাইজ হলো ৩৪। আর আপারবাস্ট সংখ্যা পাওয়া গেলো ৩৭। তাহলে, কাপ সাইজ হবে (৩৭-৩৪=৩)। এই সংখ্যাটি কাপ C রেফার করছে। অর্থাৎ আপনার ব্রা এর মাপ হবে ৩৪ সি। (বিয়োগফল ১ অর্থে A, ২ অর্থে B, ৩ অর্থে C, ৪ অর্থে D, ৫ অর্থে E ইত্যাদি)। অর্থাৎ ডিফারেন্স ১ হলে কাপ সাইজ A, ২ হলে B এভাবে কাউন্ট করতে হবে।

৫) ব্রা এর সাইজের ক্ষেত্রে ৩০AA, ৩২AA, ৩৪AA দেখা যায়। AA হচ্ছে সবচেয়ে ছোট কাপ সাইজ। যদি বাস্ট সাইজ ও ব্যান্ড সাইজের ডিফারেন্স ১ ইঞ্চির কম হয়, তাহলে এই সাইজটি সিলেক্ট করতে হয়।

আপনাদের বোঝার সুবিধার জন্য আমি একটি চার্ট অ্যাড করে দিচ্ছি।

ব্রা সাইজ চার্ট কনভার্টার

ইয়োগা লেগিং কেন চুজ করবেন?

জিমে ওয়ার্কআউট করা মানে নানা ধরনের অ্যাক্টিভিটিজ করা। এ জন্য সবার আগে কমফোর্টের দিকে খেয়াল রাখা জরুরি। কিন্তু লেগিং বা রেগুলার ট্রাউজার পরে যদি আরামই না লাগে, তাহলে এক্সারসাইজ করতেও কিন্তু ভালো লাগবে না। এ সময় তাই এমন লেগিং সিলেক্ট করতে হবে যেন স্ট্রেচ ও বডি মুভমেন্ট করতে কোনো প্রবলেম না হয়। সেই সাথে ঘেমে গেলেও দ্রুত শুকিয়ে যাবে এমন ফেব্রিক সিলেক্ট করতে হবে। এই সবগুলো ক্রাইটেরিয়া ফিলআপ করবে এমন একটি লেগিং এর ফিচার সম্পর্কে জেনে নেই চলুন-

Armela Beyond The Mat Yoga Legging

  • স্ট্রেচেবল ও কমফোর্টেবল ফেব্রিক দিয়ে তৈরি
  • ওভার হিটিং প্রিভেন্ট করে বডিতে এয়ার ফ্লো প্রোমোট করতে হেল্প করে বলে ব্রিদিং এ প্রবলেম হয় না
  • দ্রুত শুকিয়ে যায় বলে শরীর বেশিক্ষণ ঘামে ভিজে থাকে না
  • এই লেগিং এর হাই ওয়েস্ট ডিজাইন ওয়ার্ক আউটের সময় ফুল সাপোর্ট দিবে
  • অ্যাবডোমিনাল মাসল ফ্যাট টাইট করে
  • চাবি, ফোন বা স্ন্যাকস রাখার জন্য এতে মেশ (নেট কাপড়ের তৈরি) পকেট আছে
  • বডিকে স্লিম দেখানোর জন্য লেগিংটি কমপ্যাক্ট ডিজাইনের করা হয়েছে
  • ভিজ্যুয়ালি এটি হিপস লিফট আপ করে এবং বডি শেইপকে ডিফাইন করে
  • লেগিং এর ফেব্রিক বেশ সফট ও কমফোর্টেবল বলে যে কোনো সিজনে যে কোনো সময় পরা যাবে
  • এক্সারসাইজ বা স্পোর্টস টাইমে ইউজ করতে পারবেন

ওয়ার্কআউটের সময় চুজ করেন রাইট লেগিং

লেগিং এর সাইজ মেজার করবেন কীভাবে?

লেগিং সাধারণত চারটি সাইজে পাওয়া যায়। M, L, XL ও 2XL। এই সাইজগুলো সিলেক্ট করা হয় ইঞ্চির মাপ অনুযায়ী। ইঞ্চি ফিতা দিয়ে আপনার ওয়েস্ট সাইজ মেজার করে নিলে সহজেই বুঝতে পারবেন কোন লেগিংটি আপনার জন্য স্যুইটেবল হবে। আপনাদের বোঝার সুবিধার জন্য আমি একটি চার্ট আপনাদের সাথে শেয়ার করছি-

লেগিং সাইজ চার্ট কনভার্টার

এই তো জানিয়ে দিলাম, ওয়ার্কআউটের সময় চুজ করতে পারবেন এমন দুটো টপ ও লেগিং এবং এগুলোর ফিচার সম্পর্কে। এখন থেকে ইয়োগা বা ওয়ার্কআউটের সময় কমফোর্ট নিয়ে মোটেও ভাবতে হবে না। আর একটি বিষয় জানিয়ে রাখি। এই টপ ও লেগিং ক্লিন করার জন্য ব্লিচ করার প্রয়োজন নেই। রেগুলার ডিটারজেন্ট দিয়ে ওয়াশ করে নিলেই হবে। যে কোনো ধরনের লঞ্জেরি আইটেম কেনার জন্য আমার ভরসার জায়গা সাজগোজ। শপ.সাজগোজ.কম এ অনলাইনে অর্ডার দিলে ঘরে বসেই পেয়ে যাবেন আপনার পছন্দের লঞ্জেরি আইটেমটি।

 

ছবিঃ সাজগোজ

2 I like it
0 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...