আপনার অয়েলি স্কিনের জন্যে বেস্ট ময়েশ্চারাইজার খুঁজছেন?

অয়েলি স্কিনের জন্যে বেস্ট ময়েশ্চারাইজারটি খুঁজছেন?

2 (1)

ওয়েদার পরিবর্তনের সাথে সাথে আমাদের স্কিনেও আসে নানা রকম পরিবর্তন। আর সাথে আমাদের চিন্তাও শুরু হয়ে যায়। রাতে যে স্কিন ড্রাই মনে হচ্ছিল, সকালে উঠেই অয়েলি লাগছে। মনে তখন স্বাভাবিক ভাবেই প্রশ্ন আসবে, রাতে যে স্কিন কেয়ার প্রোডাক্টসগুলো ড্রাই স্কিনের জন্যে ব্যবহার করেছিলাম সেটা কি এখন অয়েলি স্কিনের জন্যে ব্যবহার করতে পারবো? গরমকালে কমবেশি আমাদের সবারই স্কিন খানিকটা অয়েলি থাকে। কিন্তু অয়েলি স্কিনের জন্যে কোন স্কিন কেয়ার প্রোডাক্টসগুলো ভাল হবে তা নিয়ে আমরা নানান দ্বিধায় থাকি। তাই অয়েলি স্কিনের জন্য যারা বেস্ট ময়েশ্চারাইজার খুঁজছেন, তাদের জন্য আজ আমি কথা বলব ৪টি ময়েশ্চারাইজার নিয়ে, যা অয়েলি স্কিনের জন্যে ব্যবহার করা যাবে নিশ্চিন্তে। চলুন তাহলে দেরী না করে ময়েশ্চারাইজারগুলো নিয়ে জেনে নেওয়া যাক।

(১) সিম্পল হাইড্রেটিং লাইট ময়েশ্চারাইজার (Simple Kind to Skin Hydrating Light Moisturiser)

আপনি যদি অয়েলি স্কিনের জন্যে বাজেট ফ্রেন্ডলির মধ্যে কোনো ময়েশ্চারাইজার খুঁজে থাকেন, তাহলে সিম্পল হাইড্রেটিং লাইট ময়েশ্চারাইজার নির্দ্বিধায় হতে পারে আপনার জন্যে রাইট চয়েজ।

কেনার আগে যা যা জেনে নেয়া ভাল

  • সিম্পল হাইড্রেটিং লাইট ময়েশ্চারাইজারে প্রায় ৩০টির কাছাকাছি প্রয়োজনীয় ইনগ্রিডিয়েন্ট রয়েছে।
  • সিম্পল হাইড্রেটিং লাইট ময়েশ্চারাইজারটি মূলত অয়েলি এবং কম্বিনেশন স্কিন টাইপকে টার্গেট করে বানানো হয়েছে।
  • এতে কোন রকম আর্টিফিশিয়াল পারফিউম, প্যারাবেন, অ্যালকোহল বা কালার ব্যবহার করা হয়না। তাই যারা এমন ময়েশ্চারাইজার খুঁজছেন, তাদের জন্যে এটি হতে পারে বেস্ট চয়েজ।

স্কিনে ময়েশ্চারাইজারটি কীভাবে কাজ করবে?

  • কোন রকম সাইড ইফেক্ট নেই। খুব মাইল্ড একটা সুথিং ফিল দিবে।
  • এতে থাকা ভিটামিন ই স্কিনের লাবণ্য ধরে রাখতে সাহায্য করে।
  • স্কিনের ময়েশ্চারাইজারকে লক করে রাখতে সাহায্য করে।
  • ল্যাক্টিক অ্যাসিড স্কিনের পি. এইচ ব্যাল্যান্স ধরে রাখতে হেল্প করে।
  • এতে থাকা বেশিরভাগ ইনগ্রিডিয়েন্টসই স্কিনকে হাইড্রেটেড রাখতে সাহায্য করে।
  • খুবই লাইট ওয়েট এবং ক্রিমি টেক্সচার।
  • খুব অল্প পরিমাণে নিলেই পুরো ফেইস কভার করা যায়।
  • বাজেট ফ্রেন্ডলি একটি প্রোডাক্ট।

(২) নিউট্রোজেনা হাইড্রো বুস্ট ওয়াটার জেল (Neutrogena Hydro Boost Water Gel)

যাদের কাছে প্রোডাক্ট কোয়ালিটি সবচেয়ে বেশি ম্যাটার করে, তাদের জন্যে নিউট্রোজেনা হাইড্রো বুস্ট ওয়াটার জেল হতে পারে খুবই পছন্দের একটি প্রোডাক্ট।

কেনার আগে যা যা জেনে নেয়া ভাল

  • এটি একটি হাইড্রেটিং ময়েশ্চারাইজার।
  • খুব লাইট ব্লু কালার।
  • রিফ্রেশিং স্মেল।
  • সারাদিন ধরে স্কিনের হাইড্রেশন লক করে রাখতে হেল্প করে।
  • ডার্মাটোলজিস্ট দ্বারা পরীক্ষিত।
  • অয়েল ফ্রি।
  • একদমই পোর ক্লগ করেনা।

স্কিনে ময়েশ্চারাইজারটি কীভাবে কাজ করবে?

  • স্কিনে একদমই হ্যাভি ফিল দেয়না। খুবই লাইট টেকশ্চার।
  • অ্যাপ্লাই করার সাথে সাথে স্কিনে মিশে যায়।
  • সুপার হাইড্রেটিং ফিল দেয়।
  • স্কিন একদমই অয়েলি করেনা।
  • সেনসিটিভ স্কিনের জন্যেও খুব সহজেই মানিয়ে যাবে।

(৩) লাইলাক ব্রাইটেনিং ময়েশ্চারাইজার (Lilac Brightening Moisturiser)

আমাদের মধ্যে অনেকেই আছেন যাদের স্কিন অনেক মলিন বা ফ্যাকাসে লাগে। যারা স্কিনকে ময়েশ্চারাইজড রাখার পাশাপাশি স্কিনে একটা গ্লোয়িং এফেক্ট চান তারা এটি সিলেক্ট করতে পারেন।

কেনার আগে যা যা জেনে নেয়া ভাল

  • এতে রয়েছে প্রায় ২৫টির মত প্রয়োজনীয় ইনগ্রিডিয়েন্টস। যেমন, আলফা আরবুটিন, হানি এক্সট্র্যাক্ট, নিকোটিনামাইড, সোডিয়াম হাইড্রোক্সিড।
  • এটি কেনার আগে স্কিন টাইপ নিয়ে ভাবার কোনো ঝামেলা নেই। যে কেউ সহজেই এটি ব্যবহার করতে পারবে।
  • এতে থাকা হানি স্কিনকে ডিপলি ময়েশ্চারাইজ করে।
  • এতে থাকা আলফা আরবুটিন একটি সেইফ ব্রাইটেনিং ইনগ্রিডিয়েন্ট হিসেবে স্কিনে কাজ করে।

স্কিনে ময়েশ্চারাইজারটি কীভাবে কাজ করবে?

  • স্কিনকে ভেতর থেকে ময়েশ্চারাইজ করার পাশাপাশি আমাদের স্কিনে যে কোনো স্পট বা পিগমেন্টেশনের প্রবলেম দূর করে।
  • যাদের স্কিন আনইভেন, তাদের স্কিনকে ইভেন করতে হেল্প করে।
  • অনেকের স্কিনের গ্লো হারিয়ে যায়, এই ময়েশ্চারাইজারটি স্কিনকে ন্যাচারালই গ্লোয়িং করতে হেল্প করে।
  • স্কিন ডিহাইড্রেটেড হলে, তাকে হাইড্রেটেড রাখতে হেল্প করে।
  • এতে থাকা ব্রাইটেনিং ইনগ্রিডিয়েন্টস স্কিনকে ভেতর থেকে গ্লোয়িং করে তুলে।

(৪) পন্ড’স সুপার লাইট জেল ময়েশ্চারাইজার (Pond’s Super Light Gel Moisturiser) 13335

এ ময়েশ্চারাইজারটির যে বিষয়টি আমার কাছে খুবই ইন্টারেস্টিং লেগেছে, তা হলো এর প্যাকেজিং। যারা ট্র্যাভেল ফ্রেন্ডলি কোনো  ময়েশ্চারাইজার খুঁজছেন তাদের জন্যে এটি হতে পারে বেস্ট অপশন।

কেনার আগে যা যা জেনে নেয়া ভাল

  • এটি আমাদের স্কিনকে সারাদিনের জন্যে  ময়েশ্চারাইজড রাখবে।
  • যেকোন সিজনের ব্যবহার করা যাবে।
  • এতে রয়েছে হায়ালুরোনিক এসিড, ভিটামিন ই এবং গ্লিসারিন এর মত প্রয়োজনীয় সব উপাদান।
  • অন্যান্য ক্রিমের তুলনায় এটি আমাদের স্কিনে খুব সহজে এবং খুব তাড়াতাড়ি মিশে যায়।
  • খুবই লাইট একটি ময়েশ্চারাইজার।

স্কিনে ময়েশ্চারাইজারটি কীভাবে কাজ করবে?

  • আমাদের স্কিনকে অনেক লম্বা সময় এর জন্যে হাইড্রেটেড রাখতে হেল্প করে।
  • স্কিনে একটি ন্যাচারাল ওয়াটার ফ্রেশ গ্লো লুক দিবে।
  • আমাদের স্কিনের ময়েশ্চার ব্যাল্যান্সকে ঠিক রাখে।
  • স্কিনকে করে সফট এবং স্মুথ।
  • স্কিনে কোন রকম স্টিকি ফিলিংস হয়না।
  • খুবই রিফ্রেশিং একটি লুক দিবে।
  • স্কিনকে একদমই অয়েলি করবে না।

গরম আসার সাথে সাথে আমাদের অনেকেরই কমন একটি সমস্যা হলো, স্কিন অয়েলি হয়ে যাওয়া। অনেকেই মনে করেন, স্কিন অয়েলি হয়ে যায় তাই ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার না করাই ভাল। কিন্তু এই ধারণাটি একদমই ঠিক নয়। আমাদের স্কিনে ময়েশ্চারাইজার নানা রকম কাজ করে থাকে। তাই স্কিন অয়েলি হওয়ার ভয়ে একেবারের ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করা বন্ধ করে দিলে লং টার্মে ফেইস করতে হতে পারে আরও বিভিন্ন সিরিয়াস সমস্যার। আশা করছি যারা অয়েলি স্কিনের জন্যে ভাল একটি ময়েশ্চারাইজার খুঁজছেন, আজকের এই লিখাটি তাদের উপকারে আসবে।

স্কিন ও হেয়ার কেয়ারের জন্য অথেনটিক প্রোডাক্ট কিনতে চাইলে আপনারা সাজগোজের দুটি ফিজিক্যাল শপ ভিজিট করতে পারেন, যার একটি যমুনা ফিউচার পার্ক ও অপরটি সীমান্ত স্কয়ারে অবস্থিত। আর অনলাইনে কিনতে চাইলে শপ.সাজগোজ.কম থেকে কিনতে পারেন। সবাই ভালো থাকবেন, সুস্থ থাকবেন, সুন্দর থাকবেন।

55 I like it
6 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...