কমফোর্টেবল সিমলেস ব্রা দিয়েই এবার পাওয়া যাবে ফুল কভারেজ

কমফোর্টেবল সিমলেস ব্রা দিয়েই এবার পাওয়া যাবে ফুল কভারেজ

1 (5)

‘এত টাকা দিয়ে ব্রা কিনলাম, একটুও পরে আরাম নেই! বাইরে বের হলেই শুরু হয় অস্বস্তি!’ আপনিও কি এই সমস্যায় ভুগছেন? তাহলে আজকের আর্টিকেলটি আপনার জন্যই। আজ আপনাদের জানাবো একটি কমফোর্টেবল সিমলেস ব্রা সম্পর্কে। যেটি আপনি ইউজ করতে পারবেন রেগুলার ওয়্যারে, পাবেন ফুল কভারেজ। চলুন তাহলে জেনে নেই এটি সম্পর্কে।

কমফোর্টেবল সিমলেস ব্রা’র বেনিফিটস

বাজারে এত ধরনের ইনারওয়্যার থাকতে কেন আপনি এই ব্রা কিনবেন? চলুন তাহলে এর বেনিফিটগুলো জানিয়ে দেই-

পরার পর হেভি ফিল হয় না

ব্রা পরার পর যদি হেভি ফিল হয় তাহলে কার ভালো লাগে বলুন? সিমলেস ব্রা’র সুবিধা হচ্ছে এগুলো বেশ লাইটওয়েট হয়। ব্রিথেবল ফেব্রিকের কারণে স্কিনে ইরিটেশন হয় না। স্ট্রেচেবল হওয়ায় এ ধরনের ব্রা গুলো সহজে পরা যায় এবং খোলা যায়।

কমফোর্টেবল সিমলেস ব্রা

আরামদায়ক হয়

দিনভর ইনারওয়্যার পরে থাকার কারণে অনেকেরই আনইজি লাগতে পারে। অনেক সময় স্কিনে দাগও পড়ে যায়। আর কাজের মধ্যে যদি অস্বস্তি লাগা শুরু হয় তাহলে তো কথাই নেই! রোজ রোজ এমন অস্বস্তি যেন না হয় সেজন্য কমফোর্টেবল সিমলেস ব্রা বেছে নিতে পারেন। এগুলো রেগুলার ওয়্যারে ব্যবহার করতে পারবেন। ইনারওয়্যার যদি কমফোর্টেবল না হয় তাহলে ইরিটেশন এবং শোল্ডার বা নেক পেইন হতে পারে। এই সমস্যাগুলো যেন না হয় সেজন্য এ ধরনের ব্রা বেশ ইউজফুল।

পোশাকের নিচে ভিজিবল হবে না

ইনারওয়্যার পরলে পোশাকের নিচে ভিজিবল হবে এমনটি অনেকেই পছন্দ করেন না। তাদের জন্য সিমলেস ব্রা হতে পারে বেস্ট চয়েস। যে কোনো আউটফিটই চুজ করুন না কেন, এই ব্রা পরলে সেটি ভিজিবল হবে না। তাই পছন্দের পোশাক পরার সাথে এখন নো কম্প্রোমাইজ!

ব্রেস্ট শেইপ ঠিক রাখে 

অনেক সময় ব্রা পরার পর ব্রেস্ট শেইপ ঠিক থাকে না। এটা অনেকেই প্রিফার করেন না। এই সিমলেস ব্রা গুলো ব্যবহারে ব্রেস্টের শেইপ ঠিক থাকে। তাই ন্যাচারালি বডি শেইপ পেতে সিমলেস ব্রা রেগুলার ওয়্যারে ইউজ করতে পারেন।

কমফোর্টেবল সিমলেস ব্রা

Armela Candy Floss Super Comfy Seamless Bra

সিমলেস ব্রা’র বেনিফিট সম্পর্কে তো জানা হলো। কিন্তু মার্কেটে এত এত ইনারওয়্যারের ভীড়ে কোন ব্র্যান্ডেরটি সিলেক্ট করলে ভালো হবে কীভাবে বুঝবেন? উপরে যে বেনিফিটগুলোর কথা বললাম তার সবই পাবেন Armela Candy Floss Super Comfy Seamless Bra তে। চলুন তাহলে এটির ফিচার সম্পর্কে জেনে নেই-

  • ব্রিথেবল ও স্ট্রেচেবল ফেব্রিক দিয়ে তৈরি
  • অ্যাডজাস্টেবল স্লিম শোল্ডার স্ট্র্যাপ রয়েছে
  • ব্রা’র পেছনে হুক থাকায় ফিটিং নিয়েও ভাবতে হয় না
  • ওয়্যার (wire) না থাকার পরও ফুল সাপোর্ট দেয়
  • সিমলেস হওয়ায় যে কোনো আউটফিটের নিচেই পরা যাবে
  • অলমোস্ট ফুল কভারেজ দিবে
  • ইয়াং জেনারেশনের কথা ভেবে তৈরি বলে তরুণীদের জন্য বেস্ট চয়েস হতে পারে
  • সফট ও কমফোর্টেবল ফেব্রিকের কারণে যে কোনো সিজনেই পরা যাবে
  • S, M, L, XL – এই ৪ সাইজে পাওয়া যাচ্ছে
  • U শেইপের ব্যাক ডিজাইন এবং রাউন্ড ও স্টাইলিশ কাপ দেয় ফুল সাপোর্ট

যেভাবে যত্ন নিবেন

  • ড্রাই ক্লিন, ব্লিচ বা আয়রন করার প্রয়োজন নেই
  • রেগুলার ডিটারজেন্ট দিয়ে শুধু ধুয়ে নিলেই হবে

Armela Candy Floss Super Comfy Seamless Bra

যেভাবে ব্রা’র সাইজ মেজার করবেন

কমফোর্টেবল সিমলেস ব্রা সম্পর্কে তো জানা হলো। কিন্তু কেনার আগে যদি সঠিক মাপ জানা না থাকে তাহলে কীভাবে সাইজ অনুযায়ী নিজের জন্য বেস্ট ব্রা চুজ করবেন? তাই সবার আগে ব্রা’র সাইজ মেজার কীভাবে করবেন তা শেখা জরুরি। চলুন তাহলে জেনে নেই-

১) আয়নার সামনে সোজা হয়ে দাঁড়িয়ে একটি ইঞ্চি ফিতা নিয়ে ব্রেস্টের ঠিক নিচ বরাবর শরীরের চারপাশ ঘুরিয়ে মাপ নিন। মাপ নেয়ার সময় এক আঙুল পরিমাণ জায়গা ফাঁকা রাখবেন।

২) যে সংখ্যাটি পাওয়া গেলো সেটি আপনার আন্ডারবাস্ট নম্বর। যদি এই সংখ্যাটি জোড় হয়, তাহলে এর সাথে ৪ যোগ করুন। যদি বিজোড় হয়, তাহলে যোগ করুন ৫। যে যোগফল পাওয়া যাবে সেটি হবে ব্যান্ড সাইজ।

৩) আপার বাস্ট সাইজের মাপ জানার জন্য ফিতা ব্রেস্টের ফুলার অংশে ধরুন।

৪) আপার বাস্ট সাইজ থেকে ব্যান্ড সাইজ বাদ দিলে যে সংখ্যা পাওয়া যাবে সেটি কাপ সাইজ।

৫) একটা উদাহরণ দিয়ে ব্যাপারটি বুঝিয়ে বলি। ধরুন আপনার আন্ডারবাস্ট নম্বর ২৯। বিজোড় বলে এর সাথে ৫ যোগ করা হলো। ব্যান্ড সাইজ হলো ৩৪। আপারবাস্ট সংখ্যা হলো ৩৭। তাহলে কাপ সাইজ হবে (৩৭-৩৪=৩)। এই সংখ্যাটি রেফার করছে কাপ সি। অর্থাৎ আপনার ব্রা’র মাপ হবে ৩৪সি। (বিয়োগফল ১ অর্থে A, ২ অর্থে B, ৩ অর্থে C, ৪ অর্থে D, ৫ অর্থে E ইত্যাদি)। অর্থাৎ ডিফারেন্স ১ হলে কাপ সাইজ A, ২ হলে B এভাবে কাউন্ট করতে হবে।

৬) ব্রা এর সাইজের ক্ষেত্রে ৩০AA, ৩২AA, ৩৪AA দেখা যায়। AA হচ্ছে সবচেয়ে ছোট কাপ সাইজ। যদি বাস্ট সাইজ ও ব্যান্ড সাইজের ডিফারেন্স ১ ইঞ্চির কম হয়, তাহলে এই সাইজটি সিলেক্ট করতে হয়।

সাইজ নিয়ে কনফিউশন আরও ক্লিয়ার করার জন্য আমি নিচে একটি চার্ট ইনক্লুড করে দিচ্ছি।

ব্রা'র সাইজ মেজারমেন্ট

কোন জায়গা থেকে কিনবেন?

দোকানে যেয়ে ইনারওয়্যার কিনতে এখনও আমরা অনেক মেয়েরাই কমফোর্ট ফিল করি না। আবার সময় বের করে কিনতে যাওয়াটাও হ্যাসেল লাগে। তাই অস্বস্তি কাটাতে বা হ্যাসেল এড়াতে অনলাইনেই লঞ্জেরি আইটেম কেনার জন্য ভিজিট করতে পারেন সাজগোজ অ্যাপ বা ওয়েবসাইট। বেস্ট কোয়ালিটির লঞ্জেরি পাওয়া যাচ্ছে শপ.সাজগোজ.কম এ। এই ব্র্যান্ডের ব্রা ছাড়াও ভিন্ন ভিন্ন ব্র্যান্ডের ইনার ও আন্ডারওয়্যারও সাজগোজে পেয়ে যাবেন। সাইজ মেজারমেন্ট নিয়ে কোনো কনফিউশন থাকলে সাজগোজের ফেইসবুক পেইজে ইনবক্স করতে পারেন। অভিজ্ঞ ফিমেল কনসালটেন্টরা এই ব্যাপারে আপনাকে হেল্প করবেন।

ফুল কভারেজ পাওয়ার জন্য কমফোর্টেবল সিমলেস ব্রা সম্পর্কে এবং কোন জায়গা থেকে কিনলে বেস্ট প্রোডাক্ট পাবেন সেটাও আজ জানিয়ে দিলাম। রেগুলার ইউজ করতে হয় বলে ভালো লঞ্জেরির পেছনে ইনভেস্ট করাটাই বেস্ট ডিসিশন। আজ তাহলে এ পর্যন্তই। ভালো থাকুন, সুস্থ থাকুন।

 

ছবিঃ সাজগোজ

6 I like it
1 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...