ঘরে ঝিঁঝিঁ পোকার হাত থেকে রেহাই এর কিছু উপায় - Shajgoj

ঘরে ঝিঁঝিঁ পোকার হাত থেকে রেহাই এর কিছু উপায়

light

ঝিঁঝিঁ পোকা সাধারণত গ্রীষ্মকালে বেশি দেখা যায়। রাতের বেলা নিস্তব্ধতার মাঝে ঝিঁঝিঁ পোকার ডাক বেশ সুমধুর, শুনতেও ভালো লাগে। ঝিঁঝিঁ পোকা কিন্তু মোটেও ক্ষতিকর হয় না। তবে যদি ওরা একবার আপনার বাসার ভেতরে বংশবৃদ্ধি করা শুরু করে তাহলে সেটা ক্ষতিকর হতে পারে। ঝিঁঝিঁ পোকা কাগজ, কাপড় চোপড়, ফার্নিচার এমনকি দেয়ালেরও ক্ষতি করতে পারে। তাই বাসায় যদি ঝিঁঝিঁ পোকা বংশবিস্তার করে তাহলে কিছু উপায়ে তাদেরকে তাড়ানো সম্ভব।

১. ঝিঁঝিঁ পোকা তাড়ানের জন্য চিটাগুড় হতে পারে আপনার অন্যতম প্রধান অস্ত্র। একটি বাটিতে একচামচ চিটাগুড় নিন, তারপর বাটিতে পানি দিয়ে অর্ধেক পূর্ণ করুন। চিটাগুড় মেশানো পানির বাটিটি ঘরের এক কোণায় রেখে দিন। চিটাগুড়ের গন্ধ ঝিঁঝিঁ পোকাকে বেশ আকৃষ্ট করে। তাই দেখবেন দলে দলে ঝিঁঝিঁ পোকা পানির বাটিতে ঝাপিয়ে পড়ছে। এছাড়াও বাইরে হার্ডওয়্যার দোকানে ঝিঁঝিঁ পোকার জন্য ক্যামিক্যাল পাওয়া যায়। তবে পরিবারের স্বাস্থ্যগত দিক বিবেচনা করে সেগুলো ব্যবহার না করাই শ্রেয়।

২. একটি ট্রে এর মধ্যে কাগজ বিছিয়ে সেই কাগজে ভালো করে আঠা মাখিয়ে নিন। এরপর ঘরের যেসব জায়গায় ঝিঁঝিঁ পোকার চলাচল বেশি সেসব জায়গায় ট্রে টি রেখে দিন। দেখবেন ঝিঁঝিঁ পোকা ট্রের আঠায় আটকে যাবে। একবার কাগজ ভরে গেলে কাগজ পালটে নতুন করে ফাঁদ পাতুন।

৩. উপরের দুই পদ্ধতিতে খুব একটা কাজ না হলে বাগ স্প্রে ব্যবহার করতে পারেন। বাজারে বিভিন্ন ব্র্যান্ডের বাগ স্প্রে পাওয়া যায়। নির্দেশনা অনুসারে নিয়মিত বাগ স্প্রে ব্যবহার করুন। ঝিঁঝিঁ পোকা কমে যাবে।

৪. অনেক সময় ঝিঁঝিঁ পোকা ঘরের কার্পেটে, বই খাতা বা কাপড়ের ভাঁজে ডিম পাড়তে পারে। সেক্ষেত্রে ভ্যাকুয়াম ক্লিনার ইউজ করে কার্পেট ও কাপড় চোপড় পরিষ্কার করে নিন।

৫. যদি ঝিঁঝিঁ পোকার সংখ্যা অতিরিক্ত হয় তাহলে ঘরের জানালায় নেট ব্যবহার করুন। এমনকি ভেন্টিলেটর গুলোতেও নেট লাগান। দরজা সবসময় বন্ধ রাখার চেষ্টা করুন। যদি জানালা বা দরজায় কোন ছিদ্র থাকে সেগুলো বন্ধ করার ব্যবস্থা করুন কারণ ঝিঁঝিঁ পোকা এইসব ছোট ছিদ্র দিয়েও প্রবেশ করতে পারে।

৬. ঘরের আবর্জনার ঝুড়ি ঢেকে রাখুন। কারণ আবর্জনার গন্ধ ঝিঁঝিঁ পোকাকে আকর্ষন করতে পারে। খোলা আবর্জনার ঝুড়িতে ঝিঁঝিঁ পোকার বংশবৃদ্ধির ভালো সম্ভাবনা থাকে।

৭. বাসার আশেপাশে যদি ঝোপ, উঁচু ঘাস বা জঙ্গল থাকে সেখানে ঝিঁঝিঁ পোকা বংশবৃদ্ধি করতে পারে। তাই সেগুলো পরিষ্কার করার ব্যবস্থা করুন। অযাচিত ঝোপ, লতা গুল্ম এগুলো পরিষ্কার করুন। ঘাস বড় থাকলে ছোট করুন। এছাড়া বাসার আসে পাশে ড্রেন থাকলে সেগুলো পরিষ্কার করার ব্যবস্থা করুন।

৮. ঘরের ভেতর উজ্জ্বল আলো ব্যবহার না করলে ঝিঁঝিঁ পোকার আক্রমণ কম হবে। বাজারে এখন বিভিন্ন এলইডি লাইট পাওয়া যায়। যেগুলো উজ্জ্বল কিন্তু কোন রকম পোকামাকড় আকৃষ্ট করে না। তাই ঘরের ভেতর সেগুলো ব্যবহার করার চেষ্টা করুন। আর বাসার বাইরে সদর দরজা থেকে দূরে একটি উজ্জ্বল আলো ব্যবহার করতে পারেন। এতে ঝিঁঝিঁ পোকা সব সেই আলোতে আকৃষ্ট হয়ে ঘর ছেড়ে যেতে পারে।

৯. ঘরে টিকটিকি এবং মাকড়সা থাকলে সেগুলো প্রাকৃতিক ভাবেই ঝিঁঝিঁ পোকা নিয়ন্ত্রণে আপনাকে সাহায্য করবে। তাই যদি বাগ স্প্রে ব্যবহার করেন তাহলে খেয়াল রাখবেন সেগুলো যেন মাকড়সা, টিকটিকি, চড়ুই জাতীয় ছোট পাখির কোন ধরনের ক্ষতি না করে।

সাধারণ নিয়মে ঝিঁঝিঁ পোকা নির্মূল করা সম্ভব। তাই বাসায় যদি শিশু কিংবা বৃদ্ধ থাকে তাহলে ক্যামিক্যাল জাতীয় জিনিসপত্র ব্যবহার থেকে বিরত থাকবেন।

লিখেছেনঃ ফরহাদ রাকিব

ছবিঃ লাক্সরিভিউ.কম

2 I like it
0 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...