বাজেট ফ্রেন্ডলি লিপস্টিক যা টিনেজারদের ক্যাজুয়াল লুকের সাথে মানানসই!

টিনেজারদের ক্যাজুয়াল লুকের জন্য ৬টি বাজেট ফ্রেন্ডলি লিপস্টিক ব্র্যান্ড

টিনেজারদের ক্যাজুয়াল লুকের জন্য বাজেট ফ্রেন্ডলি লিপস্টিক ব্র্যান্ড দেখাচ্ছে একজন

মেকআপ প্রোডাক্টগুলোর মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় হল লিপস্টিক। লিপস্টিক দিতে ভালবাসে না এরকম নারী খুব কমই পাওয়া যাবে। টিনেজার থেকে মধ্যবয়সী কিংবা অনেক বয়স্ক নারীও লিপস্টিক দিয়ে ঠোঁট রাঙ্গাতে পছন্দ করে। আমি যখন টিনেজার ছিলাম; ঠোঁট সাজাতে হরেক ব্র্যান্ডের লিপস্টিক ব্যবহার করতাম। আমার মধ্যে ও লিপস্টিক নিয়ে আগ্রহের কমতি ছিলনা! কিন্তু আমি সবসময় বাজেট ফ্রেন্ডলি লিপস্টিক ব্র্যান্ড খুঁজতাম! কারণ; এসময় আমার নিজস্ব ইনকাম ছিল না, বাসা থেকে খরচের জন্য যে টাকা দেয় তা থেকে টাকা জমিয়ে লিপস্টিক কিনতাম। তাই আপনারা যারা টিনেজার; আমি জানি, লিপস্টিক কিংবা যেকোন মেকআপ প্রোডাক্ট কিনতে গেলে বাজেটের বিষয়টা আপনাদেরও খেয়াল রাখতে হয়। কিন্তু তাই বলে কি সাজগোজের ইচ্ছাকে জলাঞ্জলি দিবেন? আপনাদের সুবিধার জন্য আমি তাই আজকে টিনেজারদের ক্যাজুয়াল লুকের জন্য বাজেট ফ্রেন্ডলি লিপস্টিক ব্র্যান্ড সম্পর্কে লিখবো।

টিনেজারদের ক্যাজুয়াল লুকের জন্য বাজেট ফ্রেন্ডলি লিপস্টিক

আমি আজকে টিনেজারদের ক্যাজুয়াল লুকের জন্য ৬টি বাজেট ফ্রেন্ডলি লিপস্টিক ব্র্যান্ড নিয়ে লিখবো। সেগুলো হল-

  • জানাস লিকুইড ম্যাট লিপস্টিক।
  • নিরভানা কালার ম্যাট লিকুইড লিপস্টিক।
  • ফ্লোরমার সুপারম্যাট লিপস্টিক।
  • লাফজ হালাল লিপস্টিক।
  • ওয়েট অ্যান্ড ওয়াইল্ড মেগালাস্ট লিপ কালার।
  • নিকা কে নিউ ইয়র্ক ট্রু ম্যাট লিপস্টিক।

তাহলে চলুন জেনে নেয়া যাক এই ব্র্যান্ডগুলোর কিছু লিপস্টিক সম্পর্কে!

জানাস লিকুইড ম্যাট লিপস্টিক

প্রথমেই, আমি যে বাজেট ফ্রেন্ডলি লিপস্টিক ব্র্যান্ডটির নাম সম্পর্কে বলবো, সেটি হচ্ছে জানাস লিকুইড ম্যাট লিপস্টিক। জানাস USA এর একটি ব্র্যান্ড। এই ব্র্যান্ডের যে বিষয়টি আমার তুলনামূলকভাবে ভালো লেগেছে সেটি হল; লিপস্টিক শেডে আছে অনেক ভ্যারিয়েশন, তাই কোন শেডই আপনার অপছন্দ হবে না। অন্তত আমার কাছে সব শেডই বেশ ভালো লেগেছে।

জানাস লিকুইড লিপস্টিক বারবারা শেড দেখাচ্ছে একজন

জানাস লিকুইড ম্যাট লিপস্টিক ব্যবহার করে আমি যা যা বুঝতে পেরেছি-

  • ফর্মুলা আমার কাছে বেশ ভালো লেগেছে। ঠোঁটে দিলে একদমই আঠালো লাগেনা। এছাড়াও ক্র্যাক করেনা।
  • লাইটওয়েট, ক্যাজুয়াল লুকের জন্য পারফেক্ট!
  • খুব সুন্দর টেক্সচার। খুবই ভালো পিগমেন্টেশন দেয়।
  • অ্যাপ্লিক্যাটরটা ইউজার ফ্রেন্ডলি। তাই খুব সহজে ঠোঁটে অ্যাপ্লাই করা যায়।
  • খুব সুন্দরভাবে ঠোঁটে ম্যাট ফিনিশিং দেয়।
  • ম্যাট ফিনিশিং দেয়া সত্ত্বেও ঠোঁটকে ময়েশ্চারাইজড রাখে।
  • অনেক সময় দেখা যায়, সুপার ম্যাট বা এক্সট্রিম ম্যাট লিপস্টিক গুলো সহজেই ক্র্যাক করে। কিন্তু; জানাসের লিপ্সটিকের ক্ষেত্রে এটা একদমই হয় না।
  • আরেকটি ভালো দিক হচ্ছে, আমার ঠোঁটে এটি দীর্ঘক্ষণ ছিল। তেল জাতীয় খাবার খাওয়ার পরও ওয়াইপ আউট হয় নি।
  • চকলেটি স্মেল।

জানাসের আছে ৮ টি শেড- ন্যান্সি, মেলানিয়া, বারবারা, এলিজাবেথ, মাইকেল, লরা, হিলারি এবং রোজালিন। এই ব্র্যান্ডের লিপস্টিকের দাম একটু বেশি হলেও বেশ ভালো ফর্মুলা দিয়ে তৈরি। আমি সাজগোজ থেকে সেলের সময় ডিস্ককাউন্ট দিয়ে কিনেছিলাম। আপনারাও চাইলে সেলে ডিস্কাউন্ট দিলে নিয়ে নিতে পারেন। এতে করে দাম থাকবে হাতের নাগালেই!

নিরভানা কালার ম্যাট লিকুইড লিপস্টিক

জানাস লিকুইড ম্যাট লিপস্টিক পর আমি যে ব্র্যান্ডটিকে বেশি প্রায়োরিটি দিবো সেটি হল নিরভানা কালার ম্যাট লিকুইড লিপস্টিক। বাজেট ফ্রেন্ডলি যদি কোন লিকুইড লিপস্টিক খুঁজি, তবে আমার পছন্দের লিস্টে আছে আরও একটি নাম। সেটি হল নিরভানা ব্র্যান্ডের কালার ম্যাট লিকুইড লিপস্টিক। কম বাজেটের মধ্যে সেরা একটি ব্র্যান্ড।

টিনেজারদের ক্যাজুয়াল লুকের জন্য বাজেট ফ্রেন্ডলি লিপস্টিক নিরভানা লিকুইড লিপস্টিক শেড মুন সাফারি দেখাচ্ছে একজন

এই ব্র্যান্ডের আছে ৬টি ভিন্ন শেড। হট চিলি পিপার, মুন সাফারি, অ্যানারচিস্ট, নটি গার্ল, ওমানিটি, রোমান্টিকা। টিনেজ ক্যাজুয়াল লুকের জন্য প্রতিটা শেডই বেশ সুন্দরভাবে মানিয়ে যাবে। শুধুমাত্র ক্যাজুয়াল লুকই না; যেকোনো গর্জিয়াস পার্টি লুকের সাথে মানানসই এর যেকোনো শেড।

এছাড়াও; এটি ওয়ার্ম বা নিউট্রাল স্কিনের জন্য পারফেক্ট। যেকোনো বয়সী নারী নিরভানা কালার ম্যাট লিকুইড লিপস্টিক ব্যবহার করতে পাবেন। শুধুমাত্র ক্যাজুয়াল লুকই না; যেকোনো গর্জিয়াস পার্টি লুকের সাথে মানানসই এর যেকোনো শেড।

  • বাজেট ফ্রেন্ডলি। দাম অনুযায়ী বেশ ভালো পিগমেন্টেশন দেয়।
  • স্মুথ টেক্সচার।
  • ক্র্যাক করে না।
  • লং লাস্টিং।
  • ভেলভেটি ম্যাট ফিনিশ দেয়।
  • লাইটওয়েট, ঠোঁটে দিলে একদমই হেভি ফিল হয় না।
  • ঠোঁটে মাখনের মত বসে যায়।
  • খুব হালকা ভ্যানিলা স্মেল।
  • ইউজার ফ্রেন্ডলি অ্যাপ্লিক্যাটর। ঠোঁটে সহজেই অ্যাপ্লাই করতে পারবেন।

ফ্লোরমার সুপারম্যাট লিপস্টিক

বাজেট ফ্রেন্ডলি যদি কোন লিকুইড লিপস্টিক খুঁজি তবে আমার পছন্দের লিস্টে আছে আরও একটি নাম। সেটি হল ফ্লোরমার। এটি তুরস্কের একটি বিখ্যাত ব্র্যান্ড। এখানে একটি বিষয় লক্ষ্য করতে হবে। এই ব্র্যান্ডের বাজেট এবং ফিনিশিং এর উপর ডিপেন্ড করে কয়েক ধরনের লিপস্টিক আছে। যেমনঃ শির আপ লিপস্টিক, ক্রিমি ম্যাট লিপস্টিক, এইচডি ওয়েটলেস ম্যাট, সুপারম্যাট লিপস্টিক, সিল্ক ম্যাট সহ আরও ভ্যারিয়েশন আছে।

Flormar Supermatte lipstick

ফ্লোরমার সুপারম্যাট লিপস্টিকে পাচ্ছেন অনেক ধরনের শেড। তাই খুব সহজেই প্রতিদিনের ক্যাজুয়াল লুকের জন্য ফ্লোরমারের সুপারম্যাট লিপস্টিকের যেকোনো শেড কিনতে পারেন।

ফ্লোরমার সুপারম্যাট লিপস্টিক ব্যবহার করে আমি যা যা বুঝতে পেরেছি-

  • সর্বপ্রথমেই আমি খেয়াল করেছি এর টেক্সচার। খুবই ক্রিমি এবং স্মুথ।
  • এটি একটি বুলেট লিপস্টিক। উপরের দিকে ট্যাপারড শেপ, ফলে অ্যাপ্লাই করার সময় ঠোঁটের কোণায় ছড়াবে না। ঝামেলাবিহীন ভাবেই অ্যাপ্লাই করতে পারবেন।
  • আপনার ঠোঁটে ভেলভেট ম্যাট ফিনিশিং দিবে।
  • পিগমেন্টেশন ভালো।
  • লাইটওয়েট।
  • ঠোঁটে একবার অ্যাপ্লাই করলেই সুন্দরভাবে কালার ফুঁটে উঠে।
  • যেকোনো স্কিনটোনে খুব সুন্দর মানায়।
  • আমি যখন লিপস্টিকের ক্যাপ খুলেছিলাম, খুব হালকা মিষ্টি একটি সুঘ্রাণ পেয়েছিলাম। পরবর্তিতে, ঠোঁটে অ্যাপ্লাই করার পর তা মিলিয়ে যায়।

তবে, আপনার যদি বাজেট বাড়াতে পারেন, তবে ফ্লোরমার সিল্ক ম্যাট লিপস্টিকটি নিতে পারেন। এটি লিকুইড ফর্মুলার, তবে টেক্সচার আমার কাছে সুপারম্যাটের থেকে বেশি ভালো লেগেছে। এটিও লাইটওয়েট।

লাফজ হালাল লিপস্টিক

লাফজ ব্র্যান্ডের লিপস্টিক হল লাফজ হালাল লিপস্টিক। এটি একটি ইটালিয়ান ব্র্যান্ড হলেও লিপস্টিকগুলো খুবই বাজেট ফ্রেন্ডলি। এর আছে দুই ধরনের লিপস্টিক। একটা বুলেট, আরেকটি লিকুইড। লাফজের লিপস্টিক হল হালাল সার্টিফায়েড।

Lafz halal lipstick

কিছু স্পেশাল বৈশিষ্ট্য-

  • হাইপার পিগমেন্ট ফর্মুলেশন।
  • এই ব্র্যান্ড ক্লেইম করে যে, তাদের হালাল লিপস্টিক ৮ ঘণ্টা পর্যন্ত লং লাস্টিং করে।
  • কারমিন, ল্যানলিন, বিওয়াক্স ও প্যারাবেন মুক্ত।

ওয়েট এন ওয়াইল্ড মেগালাস্ট লিপস্টিক 

ওয়েট এন ওয়াইল্ড ব্র্যান্ডের নাম সব টিনেজাররাই কমবেশি শুনেছেন। খুবই জনপ্রিয় এই ব্র্যান্ডের দুইটি রিজনেবল লিপস্টিক প্রোডাক্ট লাইন হচ্ছে- মেগালাস্ট লিপ কালার; যা ক্রিমি ফর্মুলার ও বুলেট আকৃতির, আরেকটি হল মেগালাস্ট লিকুইড ক্যাটসুট লিপস্টিক, এটি ম্যাট ফিনিশের লিকুইড ফর্মুলার। এতে আছে ভিটামিন ই। এছাড়াও আছে সিল্ক ফিনিশ লিপস্টিক যা আপনার লিপ্সে শাইনি ও সিল্কি ফিনিশিং দিবে। এটি-

  • মোটামুটি ৮ ঘণ্টা লং লাস্টিং করে।
  • ঠোঁট ময়েশ্চারাইজড করে।
  • পানি খেলে গ্লাসে স্টেইন লেগে থাকে না।

লিকুইড লিপস্টিকটাও ভালো। ক্র্যাক করে না।

নিকা কে নিউ ইয়র্ক ট্রু ম্যাট লিপস্টিক

আমি এখন সর্বশেষ যে ব্র্যান্ডের লিপস্টিক নিয়ে কথা বলবো; সেটি হল নিকা কে। আর এই ব্র্যান্ডের জনপ্রিয় লিপস্টিক হল নিকা কে নিউ ইয়র্ক ট্রু ম্যাট লিপস্টিক।

4 shades of Nicka K New York True Matte Lipstick

এই লিপস্টিকটি টিনেজাররা অনেক পছন্দ করে। কারণ-

  • বাজেট ফ্রেন্ডলি।
  • ঠোঁটে সুন্দর ভাবে বসে যায়।
  • বেশ ভালো পিগমেন্টেড।
  • লাইটওয়েট।
  • সুন্দর সুন্দর শেড।

তাহলে, জেনে নিলেন টিনেজারদের ক্যাজুয়াল লুকের জন্য ৬টি বাজেট ফ্রেন্ডলি লিপস্টিক ব্র্যান্ড! আশা করছি আপনি যদি একজন টিনেজার হন; তবে এই আর্টিকেলটি আপনার জন্য হেল্পফুল হবে। অথেনটিক মেকআপ প্রোডাক্টস কিনতে আপনারা চাইলে সাজগোজের দুটি ফিজিক্যাল শপ যার একটি যমুনা ফিউচার পার্ক ও অপরটি সীমান্ত সম্ভারে অবস্থিত, সেখান থেকে কিনতে পারেন আর অনলাইনে কিনতে চাইলে শপ.সাজগোজ.কম থেকে কিনতে পারেন। আজ এ পর্যন্তই!

ছবি- সাজগোজ

6 I like it
3 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...