মুখের বড় উন্মুক্ত লোমকূপ ছোট বা বন্ধ করার ৪টি ধাপ মুখের বড় উন্মুক্ত লোমকূপ ছোট বা বন্ধ করার ৪টি ধাপ

মুখের বড় উন্মুক্ত লোমকূপ ছোট বা বন্ধ করার ৪টি ধাপ

লিখেছেন - জোহরা হোসেন মে ৬, ২০১৭

আমাদের দেশ হল গ্রীষ্ম প্রধান দেশ। তাই গরমকালে অনেকেই ত্বকের নানান সমস্যায় ভুগে থাকি। এসব সমস্যার একটি হল ‘ওপেন পোরস’ বা মুখের বড় উন্মুক্ত লোমকূপ এর সমস্যা। সাধারণত ত্বকের এই সমস্যাকে আমরা কোন সমস্যাই মনে করি না । কিন্তু ত্বকে বয়সের আগে বয়সের ছাপ পড়ার এবং ত্বকে ব্ল্যাকহেডস, ব্রণ, পিগমেন্টেশন, ব্লেমিস হবার অন্যতম কারণ হল মুখের বড় উন্মুক্ত লোমকূপ । তাই ত্বক কোমল এবং ত্বকের যৌবন দীর্ঘদিন ধরে রাখার জন্য ওপেন পোরস বা মুখের বড় উন্মুক্ত লোমকূপ সমস্যার প্রতিরোধ ও প্রতিকার করা প্রয়োজন। আসুন তার আগে জেনে নেই- ত্বকের পোরস-গুলো কী কারণে খুলে যায়?

মুখের বড় উন্মুক্ত লোমকূপ হবার কারণ

মুখের বড় লোমকূপ - shajgoj.com

  • গরমকালে অতিরিক্ত ঘাম হয়, যা ত্বকের পোরস খোলার অন্যতম কারণ।
  • ত্বকের সিবেসিয়াস গ্ল্যান্ড(sebaceous glands) থেকে অতিরিক্ত তেল বের হবার কারণে ত্বকের পোরস খুলে যায় এবং ব্রণ ও একনে হয়।
  • বয়স বৃদ্ধির সাথে সাথে ত্বকের ইলাস্টিসিটি এবং টাইটেনিং কমতে থাকে যার ফলে পোরস বড় হয়ে যায়।

এছাড়াও সূর্যের আলোর অতিবেগুনী রশ্নির প্রভাবে, হরমোন জনিত কারণে, সঠিক ডায়েট-এর অভাবে, পানি শূন্যতায়, ত্বক পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি দিয়ে পরিষ্কার করা না হলে পোরস বড় হয়ে যায়।

ওপেন পোরস ছোট বা বন্ধ হবার ৪টি ধাপ

সুস্থ ত্বকের জন্য ওপেন পোরস বন্ধ বা ছোট করা জরুরী। এর জন্য উপযুক্ত চারটি ধাপ রয়েছে। তা হলো-

 ১) ক্লিঞ্জিং

২) টোনিং

৩) ফেইস মাস্ক

৪) ময়েশ্চারাইজিং

চলুন দেখে নেয়া যাক এই চারটি ধাপের জন্য কী কী লাগছে এবং কীভাবে করতে হবে…

(ধাপ – ১) ক্লিঞ্জিং

মুখের বড় উন্মুক্ত লোমকূপ দূর করতে বেসনের মাস্ক - shajgoj.com

১ টেবিল  চামচ বেসন, ১ টেবিল চামচ চালের গুঁড়া, ১ টেবিল চামচ রোজ ওয়াটার দিয়ে মিশ্রণ তৈরি করুন। এই মিশ্রণটি মুখে চার থেকে ছয় মিনিট মুখে রেখে হালকা ঘষে তুলে ফেলুন। এরপর পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন।

বেসন প্রাকৃতিক ক্লিঞ্জার হিসেবে কাজ করে, ত্বক উজ্জ্বল করে। চালের গুঁড়া ত্বক এক্সফলিয়েট করে এবং ব্ল্যাকহেডস দূর করে ত্বক উজ্জ্বল করে।

(ধাপ – ২) টোনিং

মুখের লোমকূপ দূর করতে রোজ ওয়াটার লেবু টমেটো - shajgoj.com

১ টেবিল চামচ টমেটো জুস, ১ টেবিল চামচ লেবুর রস, ১ টেবিল চামচ রোজ ওয়াটার নিয়ে টোনার তৈরি করুন এবং মুখে লাগিয়ে রাখুন । শুকানো পর্যন্ত অপেক্ষা করুন।

ঘরে বসেই তৈরি করুন গোলাপজল!

টমেটো জুস ত্বকের অতিরিক্ত তেল শুষে নেয়, ত্বকের বার্ধক্য রোধ করে ত্বকের পোরস-গুলো ছোট করে। লেবুর রসে রয়েছে এনজাইম যা স্কিন টাইট করে এবং ত্বক উজ্জ্বল করে।

(ধাপ – ৩) ফেইস মাস্ক

মুখের লোমকূপ দূর করতে মুলতানি মাটির মাস্ক - shajgoj.com

১ টেবিল চামচ মুলতানি মাটি, ১ টেবিল চামচ টক দই, অল্প রোজ ওয়াটার নিয়ে পেস্ট তৈরি করুন এবং মুখে লাগিয়ে রাখুন শুকানো পর্যন্ত। শুকিয়ে গেলে মুখ ধুয়ে ফেলুন।

মুলতানি মাটি ত্বকের  বাড়তি তেল শোষণ করে ত্বকের পোরস-গুলো ছোট করে, ত্বক টাইট করে এবং ত্বকের ব্লেমিস, পিগমেন্টেশন সমস্যা দূর করে। টক দই ত্বককে  ময়েশ্চারাইজ করে, ত্বক উজ্জ্বল করে।

(ধাপ – ৪) ময়েশ্চারাইজিং

মুখের লোমকূপ দূর করতে ময়েশ্চারাইজিং - shajgoj.com

তিনটি ধাপ শেষে ত্বকের ধরণ অনুযায়ী ময়েশ্চারাইজিং ক্রিম লাগিয়ে নিন।

এই চারটি ধাপ সপ্তাহে অন্তত ৪ দিন অনুসরণ করুন ভালো ফলাফলের জন্য। এতে কিছুদিনের মধ্যেই পার্থক্য বুঝতে পারবেন। পোরস ছোট হয়ে গেলে আপনার সুবিধা মতো সপ্তাহে দুই দিন লাগাতে পারেন।

ত্বকের পোরস ঠিক রাখার প্রধান শর্ত হলো ত্বককে তেল ও ধুলাবালি মুক্ত রাখা ও ঠাণ্ডা রাখা। এক্ষেত্রে মুখের ত্বকে নিয়মিত বরফ লাগাতে পারেন। এতে ত্বক ভালো থাকবে। আপনি চাইলে শসার রস দিয়ে বরফ করে তা লাগাতে পারেন। এতেও অনেক ভালো ফল পাবেন। তাহলে ওপেন পোরস-এর জন্য আজ থেকেই সচেতন হোন!

ছবি – গর্জিয়াসহেয়ারঅ্যান্ডবিউটিকেয়ার ডট কম, দিবিউটিম্যাডনেস ডট কম, স্টাইলক্রেজ ডট কম

 ছবিঃ সংগৃহীত – সাজগোজ.কম, ইমেজেসবাজার.কম