শীতে ত্বকের আর্দ্রতা রক্ষায় বডি পলিশার - Shajgoj

শীতে ত্বকের আর্দ্রতা রক্ষায় বডি পলিশার

DIY-Citrus-Salt-Scrub-offbeat-inspired

শীতটা চলেই এল। সবাই এখন নিশ্চয়ই একটু বাড়তি আর্দ্রতার খোঁজ করছেন। কিন্তু বাজারের বডি লোশান, বডি ওয়াশ আপনাকে শুধু সাময়িক আর্দ্রতাই দিতে পারবে। বিনিময়ে এতে থাকা paraben, alcohol এবং silicon আপনার স্বাস্থ্য ও সৌন্দর্যের ক্ষতি ছাড়া উপকার করবে না।

এই শীতের শুষ্ক আবহাওয়ায় সবার ত্বক একটু হলেও কালচে হয়ে ওঠে। এর কারণ হচ্ছে ত্বকের উপরে জমে থাকা মৃত কোষ। এছাড়া গ্রীষ্মকালের থেকে যাওয়া জেদি ট্যান তো রয়েছেই। ত্বকের কালচে ভাব কাটাতে ও আর্দ্রতার যোগান দিতে আপনাদের জন্য থাকছে দুটি বডি পলিশার রেসিপি যা আপনি হাতের কাছের কিছু উপকরণ দিয়ে ঘরেই বানাতে পারবেন।

বডি পলিশার কী?

বডি পলিশার কে বডি স্ক্রাব এর mild ভার্সন বলা যায়। এর স্ক্রাবিং particles বডি স্ক্রাব particles থেকে ছোট ও mild  বলে বডি পলিশ রোজরোজ ব্যবহার করা যায়। ত্বকের কোন ক্ষতি ছাড়াই। তাছাড়া বডি পলিশ তার ছোট particles এর কারণে বডি স্ক্রাব এর চেয়েও ভালো ভাবে মৃত কোষ দুর করতে সক্ষম। চেষ্টা করবেন বডি পলিশার ব্যবহার করার পর বডি ওয়াশ বা সাবান ব্যবহার না করতে। নিয়মিত বডি পলিশ করলে ত্বক তো উজ্জ্বল হয়ে উঠবেই তার সাথে মৃত কোষ ঝরে যাবার কারণে ত্বক আপনার বডি লোশান, বডি বাটার বা বডি অয়েল এর আর্দ্রতা ও nourishment অনেক ভালো ভাবে গ্রহণ করতে পারবে। আর যদি নিয়মিত ব্যবহার না করতে পারেন তবে সাত দিনে একবার ব্যবহার করলেও ভালো ফল পাবেন।

০১. হলুদ – ওটমিল ডি-ট্যানিং বডি পলিশারঃ

2

যা যা লাগবে-

-কাঁচা হলুদ (তিন-চার ইঞ্চি টুকরা)

চাইলে হলুদ গুঁড়াও ব্যবহার করতে পারেন। সেক্ষেত্রে চা চামচের অর্ধেক ব্যবহার করবেন এবং দাগ থেকে সাবধান থাকবেন। হলুদ ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ায়, ট্যান দুর করে ও ত্বককে বুড়িয়ে যাওয়ার হাত থেকে বাঁচায়।

-ওটমিল (তিন টেবিল চামচ)

যেকোনো শপিং মল বা সুপারস্টোরে পাবেন। এটি ভালো স্ক্রাব হিসেবে কাজ করে ও ত্বকের কালচে ভাব দুর করে।

-বেসন অথবা চন্দনের গুঁড়া (দুই টেবিল চামচ)

[picture]

বেসন ত্বকের টান টান ভাব ধরে রাখে। তবে শীতে যাদের বেসন ব্যবহার করতে সমস্যা হয় তারা চন্দন ব্যবহার করতে পারেন…এটি ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করে।

-মধু (এক টেবিল চামচ)

মধু ত্বকের আর্দ্রতা ধরে রেখে ত্বককে কোমল করে।

-লেবুর রস (দুই টেবিল চামচ)

ব্লিচিং এজেন্ট হিসেবে কাজ করে ও ত্বকের কালচে ভাব দুর করেউজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করে।

-তেল (দুই টেবিল চামচ)

অলিভ অয়েল, তিলের তেল, অথবা নারকেল তেল ব্যবহার করতে পারেন। এই তেল গুলো anti oxidant ও ভিটামিন ই সমৃদ্ধ।অলিভ অয়েল ব্যবহার করলে চেষ্টা করবেন Extra virgin olive oil ব্যবহার করতে। এটা ত্বকের জন্য বেশি উপকারী।

যেভাবে ব্যবহার করবেনঃ

3

সব উপকরন মিশিয়ে ক্রিম consistency তে নিয়ে আসুন। বেশি পাতলা করবেন না। এবার গোসলের আগে এই  বডি পলিশ হাতে নিয়ে ভেজা শরীরে আস্তে আস্তে মাসাজ করুন। শুকিয়ে গেলে সামান্য পানি দিয়ে ভিজিয়ে নিন। পাঁচ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। বডি পলিশার ব্যবহার পর সাবান ব্যবহার না করাই ভালো কারণ সাবান ত্বক থেকে সব আর্দ্রতা ও nourishment শুষে  নিয়ে ত্বককে রুক্ষ করে ফেলবে। গোসলের পর পছন্দের বডি লোশান  অথবা বডি অয়েলব্যবহার করুন। ত্বকের আর্দতা বজায় থাকবে। এই মিশ্রণটি বানিয়ে ফ্রিজে সংরক্ষণ করতে পারেন কিন্তু সরাসরি বা ফ্রেশ ব্যবহার করাটাই ভালো।

এই মিশ্রণটি যেহেতু ভালো ডি-ট্যানিং মাস্ক হিসেবেও কাজ করে সুতরাং বডি পলিশার হিসেবে ব্যবহার না করে শুধু হাত পা এর ত্বকে ব্যবহার করতে পারবেন, সেক্ষেত্রে হাত ও পায়ে পনের থেকে বিশ মিনিট লাগিয়ে রেখে শুকিয়ে গেলে পানি দিয়ে আস্তে আস্তে মাসাজ করে তুলে ফেলুন।নিয়মিত ব্যবহার করলে হাত পায়ের ট্যান দূর হয়ে যাবে।

০২. চকলেট-বডি পলিশারঃ

যা যা লাগবেঃ

4

-কোকো পাউডার  (দুই টেবিল চামচ)

কোকো পাউডার যে কোন সুপারস্টোরে পাবেন। এতে আছে anti oxidant যা ত্বকের wrinkles কমাতে সাহায্য করে আর তাছাড়া, চকলেট কে না ভালোবাসে?

-Ground কফি অথবা instant কফি (এক টেবিল চামচ)

কফিতেও আছে antioxidant, তাছাড়া কফিপেট ও উরুর ত্বকের নিচে জমে থাকা cellulite দূর করতে সাহায্য করে।

-চিনি (সাধা্রণ চিনি, কিন্তু চাইলে Brown sugar ব্যবহার করতে পারেন, আধা কাপ)

চিনি খুব ভালো স্ক্রাবিং particle হিসেবে কাজ করে। ত্বকের আর্দতা ধরে রাখতে সাহায্য করে।

-মধু (এক টেবিল চামচ)

-তেল (অলিভ অয়েল, তিলের তেল অথবা নারকেল তেল, দুই টেবিল চামচ)

-গুঁড়া দুধ বা দুধের সর (এক চা চামচ)

দুধ ত্বকের আর্দ্রতা ধরে রাখে ও উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করে। কিন্তু যদি না দিতে পারেন সমস্যা নেই, তবে তেলের পরিমাণ ঠিক রাখবেন।

–   ভ্যানিলা essential oil (দুই ফোটা)

না দিতে পারলে সমস্যা নেই, তবে দিতে পারলে এর সুঘ্রাণ আপনারমন ভালো করে দিতে বাধ্য।

যেভাবে ব্যবহার করবেনঃ

5

কোকো পাউডার, কফি, চিনিএকত্রে মিশিয়ে নিন। এভাবে চাইলে সংরক্ষণ করতে পারেন যাতে বারবার নতুন করে তৈরি করতে না হয়। শুকনা কৌটায় সংরক্ষণ করবেন, যখন দরকার হবে তখন পরিমাণ মত নিয়ে এর সাথে বাকি তরল উপকরণ গুলো মিশিয়ে নিন। বেশি ঘন মনে হলে পানি মিশিয়ে পাতলা করে নিতে পারেন।

বডি পলিশার গোসলের সময়ে ভেজা ত্বকে ব্যবহার করুন। আস্তে আস্তে গোল গোল করে ঘুরিয়ে মাসাজ করবেন যাতে ত্বকে আঁচর না লাগে। তারপরও যদি চিনির দানা খুব বেশি harsh মনে হয় তবে পানি মিশিয়ে গলিয়ে নিন। শরীরে যে অংশে মেদ বেশি সেখানে বাড়তি মনোযোগ দিয়ে মাসাজ করুন। পাঁচ মিনিট পর বা সব চিনির দানা গলে যাবার পর শুধু পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। তারপর আপনার পছন্দের বডি লোশান লাগিয়ে নিন। এভাবে এই বডি পলিশারটি দিয়ে আপনি ঘরে বসেই করে ফেলতে পারেন ‘চকলেট বডি স্পা’

লিখেছেনঃ তাবাসসুম মুশতারী মীম

ছবিঃ র‌যাশেলিয়া.কম, তাবাসসুম মুশতারী মীম

0 I like it
0 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...