রিভিউঃ REVLON COLORSTAY MAKEUP FOR NORMAL/ DRY SKIN - Shajgoj

রিভিউঃ REVLON COLORSTAY MAKEUP FOR NORMAL/ DRY SKIN

REVLON COLORSTAY MAKEUP FOR NORMAL DRY SKIN

আমাদের যাদের স্কিন অনেক শুষ্ক তারা মেকআপ ফাউন্ডেশন ব্যবহার করার পর যে সমস্যায় সবচেয়ে বেশি ভুগি তা হল স্কিন ফ্লেকি হয়ে যাওয়া, চোখের নিচের ভাঁজ প্রকট হয়ে দেখা যাওয়া সহ নাকের চারপাশে মেকআপ ফেটে যাওয়া। আজকে আমি যে ফাউন্ডেশনটি নিয়ে রিভিউ লিখবো এটা খুব জনপ্রিয় একটা ফাউন্ডেশন বিশেষ করে এই উপমহাদেশের মেয়েরা এর Combination /Oily Version টি বেশি ব্যবহার করে থাকে। সেটার রিভিউ আমি পরে দেব! আমি এর উভয় ভার্সনই ব্যবহার করে দেখেছি। তবে আজকে আমি নরমাল বা শুষ্ক ত্বকের জন্য যে ভার্সনটি রেভলন বাজারজাত করেছে সেটি নিয়ে লিখবো। রেভলন নিয়ে নতুন করে কিছু বলার নেই।তাই সরাসরি রিভিউতে ঢুকে পড়ি, কি বলেন!

দামঃ ১২৫০-১৫৫০ টাকা

কোথায় পাবেনঃ

যে কোন ফেসবুক পেইজ যারা UK & USA থেকে পণ্য এনে থাকে তাদের দিয়ে সরাসরি Superdrug, Boots, Ulta, Walmart থেকে আনিয়ে নিতে পারবেন। তা ছাড়াও ঢাকার বেশ কিছু শপিং মলেও এটি পাওয়া যায়। আর যমুনা ফিউচার পার্কের Sapphire  বা তাদের অনলাইন পেইজ  থেকে অর্ডার করতে পারেন বা ষ্টকে আছে কিনা জেনে নিতে পারেন ।

প্যাকেজিংঃ

ফাউন্ডেশনটি কালো রঙের ঢাকনা সহ স্বচ্ছ কাঁচের বোতলে প্যাকেজিং করা হয়েছে আর এতে কোন পাম্প নেই। নরমাল / ড্রাই ফর্মুলায় কালো ঢাকনার ওপর স্বচ্ছ প্লাস্টিকের স্তর দেয়া আছে।

পরিমাণঃ

৩০ মিলি.

২৪-৩৬ মাস (উৎপাদনের সময় হতে )।

শেডঃ

নরমাল / ড্রাই ফরমুলাতে ১২ টি শেড। শেড গুলো কম্বি ফর্মুলা থেকে অনেকটা আলাদা। শেড গুলো হল –

ফর্সা বা লাইট স্কিনে যাবে- IVORY, BUFF, SAND BEIGE, NUDE, NATURAL BEIGE

লাইট-মিডিয়াম স্কিন টোনে যাবে- MEDIUM BEIGE,FRESH BEIGE,

মিডিয়াম স্কিনে যাবে- TRUE BEIGE,NATURAL TAN

ডার্ক স্কিন টোনে যাবে – TOAST,CARAMEL,CAPPUCCINO.

শেড গুলো আন্ডারটোন অনুযায়ী মিলিয়ে নিতে হবে।

লেখার শুরুতে আমি যে সমস্যাগুলোর কথা লিখেছিলাম সেই সমস্যা গুলোর সমাধান হিসেবে এই ফর্মুলাটি দারুণ কাজ করেছে আমার স্কিনে। প্রচণ্ড গরমে অনেক ঘামার পরেও আমার স্কিন থেকে এই ফাউন্ডেশনটি একটুও সরে যায়নি এমনকি আমি পানি দিয়ে মুখ ভিজিয়ে চেপে মুখ মুছে নেয়ার পরেও সেই প্রথম যেমন ছিল তেমনই রয়ে গেছে। যেহেতু এটি একটি মিডিয়াম থেকে ফুল কভারেজ ফাউন্ডেশন তাই ইচ্ছে করলেই আপনি আপনার কাঙ্খিত কভারেজ পেতে পারবেন। আমি এটি ৪ বার লেয়ার করার পর কেকি করতে পেরেছি। তার মানে এটি কেকি হবে না স্কিনে। আমি যে কোন ফাউন্ডেশনই ব্যবহার করিনা কেন ড্রাই এরিয়াতে এটি ব্যবহার করি কারণ এটি আমাকে ড্রাইনেস থেকে সম্পূর্ণ মুক্তি দিয়েছ। আমি আগের রিভিউ গুলোতে বলেছিলাম আমার ফুল কভারেজ ফাউন্ডেশন পছন্দ নয় তবে এটি আমার শুষ্ক ত্বকের জন্য এক মাত্র সমাধান।

যা ভালো লেগেছেঃ

১। নরমাল আর শুষ্ক ত্বকের জন্য খুব ভালো

২।সুন্দর ভাবে স্কিনের সাথে মিশে যায় ( বিউটি স্পঞ্জ, ফ্লাট টপ ব্রাশ ইত্যাদি দিয়ে ভালো ব্লেন্ড হয়)

৩।ফর্সা, উজ্জ্বল শ্যামলা আর শ্যামলা, ডার্ক সব স্কিনের জন্য শেড রয়েছে।

৪।৮  ঘণ্টা পর্যন্ত আমার মুখে কোন শাইন দেখতে পাইনি

৫।হালকা কভারেজ চাইলে বিউটি স্পঞ্জ দিয়ে ব্লেন্ড করতে পারেন

৬।ফুল কভারেজ দেবে

৭।স্কিনে কোন ব্রেক আউট হয়নি

৮।আমার স্কিনে ১২ ঘণ্টা স্থায়ী ছিল ফেড হয়নি ( রেভলন দাবি করে এটি ২৪ ঘণ্টা স্থায়ী হবে; কিন্তু আমরা কেউই মনে হয় এতক্ষণ মেকআপ করে থাকি না)

৯।ট্রান্সফারপ্রুফ

১০।এসপিএফ আছে তবে আমার ভার্সনটিতে নেই।

১১। স্কিন ফেটে যাওয়ার হাত থেকে মুক্তি ! ( আমার ক্ষেত্রে )

১২। আমার মনে হয় এটা নরমাল তৈলাক্ত স্কিনেও ভালো যাবে কারণ আমার কম্বি ড্রাই স্কিনে ভালো মনে হয়েছে।

যা ভালো লাগেনিঃ

১। বেশি লেয়ার করলে কেকি হয়ে যেতে পারে।

২। একটু হোয়াইট কাস্ট দেখা যায় ফটোগ্রাফিতে।

৩। অবশ্যই মেকআপ রিমুভার দিয়ে ভালো ভাবে উঠাতে হবে। নাহলে অন্যান্য ফুল কভারেজ ফাউন্ডেশনের মতই স্কিনের পোর গুলো ক্লগ করে ফেলবে।

৪। ড্রাই ফর্মুলার কালার সিলেকশন কম্বি ফর্মুলার মতো ভালো নয়

রেটিং

৮/১০ !  নরমাল বা মিশ্র থেকে শুষ্ক ত্বকের অধিকারীরা বা শীতকালে যাদের স্কিন ড্রাই হয় তারা এটা ট্রাই করে দেখতে পারেন।

লিখেছেনঃ বীণা

ছবিঃ রেভলন.কম

1 I like it
0 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...