স্কিন হোয়াইটেনিং এর সেইফ ও ইফেক্টিভ সল্যুশন!

স্কিন হোয়াইটেনিং এর সেইফ ও ইফেক্টিভ সল্যুশন!

IMG_2788

রেগুলার স্কিনকেয়ার করার পরেও স্কিনটা কেমন যেন মলিন হয়ে যাচ্ছিলো। রেগুলার লাইফের স্ট্রেস, পল্যুশন এগুলোর কারণে স্কিনে তো নেগেটিভ ইমপ্যাক্ট পড়েই। স্কিন আরেকটু ব্রাইট কীভাবে করা যায়, সেটা নিয়েই ভাবতাম। আমার এক ফ্রেন্ড আমাকে Dermalogika Miracle 5x Whitening Cream With Advanced Formula সাজেস্ট করলো, সে বললো এই ক্রিমটা নাকি সেইফলি স্কিন হোয়াইটেনিং এর কাজ করে। আমি শুনে বেশ অবাকই হলাম, স্কিন হোয়াইটেনিং তাও আবার সেইফলি! আমি এই ব্র্যান্ডটা নিয়ে একটু স্টাডি করলাম আর ভাবলাম ট্রাই করেই দেখি।

আমি প্রায় একমাস যাবত এই ক্রিমটা ব্যবহার করছি, এর মধ্যেই আমি স্কিনে পজেটিভ চেঞ্জ দেখতে পারছি। আজকে আপনাদের সাথে শেয়ার করবো Dermalogika Miracle 5x Whitening Cream নিয়ে আমার অভিজ্ঞতা। আমার মতো অনেকেই আছেন যারা স্কিন ব্রাইট করতে চান, কিন্তু কোনো সেইফ সল্যুশন খুঁজে পাচ্ছেন না। তাদের জন্য আজকের আর্টিকেলটি হেল্পফুল হবে।

স্কিন হোয়াইটেনিং ও হার্মফুল উপাদান

একেক জনের স্কিনটোন একেক রকম। সব স্কিনটোন-ই সুন্দর, নিজের গায়ের রং নিয়ে সবারই কনফিডেন্ট থাকা উচিত। কিন্তু অনেকেই চায় স্কিনটোন একটু ব্রাইট করতে, ফেইস একটু গ্লোয়ি করতে। ফর্সা হতে কে না চায়! এতে কিন্তু দোষের কিছু নেই, তবে স্কিন হোয়াইট করতে গিয়ে আমরা না বুঝেই এমন কিছু হোয়াইটেনিং প্রোডাক্ট ইউজ করে ফেলি যা আমাদের স্কিনের ভয়াবহ ক্ষতি করে ফেলে। নাম না জানা ব্র্যান্ডের হোয়াইটেনিং প্রোডাক্টগুলোতে মাত্রাতিরিক্ত মার্কারি, স্টেরয়েড ও অন্যান্য ক্ষতিকর উপাদান থাকে। এগুলো ইউজ করলে স্কিন বার্ন হয়ে যেতে পারে, মেছতা হতে পারে, এমনকি স্কিন ক্যান্সারও হতে পারে। তাই এই সব থেকে দূরে থাকাটাই সেইফ।

ভরসা রাখুন পিওর সায়েন্সে

স্কিন হোয়াইটেনিং এর সেইফ ও ইফেক্টিভ সল্যুশন

গতানুগতিক হোয়াইটেনিং প্রোডাক্টের নেগেটিভ সাইড নিয়ে তো জানলাম। আচ্ছা তবে এর কোনো সেইফ সল্যুশন আছে কি? যদি আপনি সেইফ ইনগ্রেডিয়েন্টের হোয়াইটেনিং প্রোডাক্ট ব্যবহার করেন তাহলে কিন্তু ভয়ের কিছুই নেই। ডার্মালজিকা এমনই একটা ব্র্যান্ড যার মেইন কনসার্ন স্কিন সেফটি। মেইনলি ডার্মালজিকা কাজ করছে সেইফ ব্রাইটেনিং ইনগ্রেডিয়েন্টস আর পিওর সায়েন্স নিয়ে। Dermalogika Miracle 5x Whitening Cream with advanced formula তে স্কিন ব্রাইটেনিং ইনগ্রেডিয়েন্টগুলো যেই অ্যামাউন্টে থাকে সেটা স্কিনের জন্য পুরোপুরি নিরাপদ। কোনো হার্মফুল ইফেক্ট ছাড়াই স্কিন ব্রাইট করে, তাই স্কিনকেয়ারে নিশ্চিন্তে ইনক্লুড করতে পারেন এই প্রোডাক্টটি।

Dermalogika Miracle 5x Whitening Cream এ কী আছে?

যাক, অবশেষে একটা ভরসার জায়গা পেলাম, স্কিন হোয়াইটেনিং প্রোডাক্ট নিয়ে আগে যে ধরনের ভয় কাজ করতো, সেটা এখন আর নেই। এই ক্রিমটি কীভাবে কাজ করে তা জানার আগে প্রথমে জানতে হবে ক্রিমটির হিরো ইনগ্রেডিয়েন্টগুলো কী কী।

 

১) গ্লুটাথিওন

স্কিন ব্রাইটেনিংয়ে গ্লুটাথিওন এখন বেশ জনপ্রিয়। বিভিন্ন স্কিনকেয়ার আইটেমে এই উপাদানটি ব্যবহার করা হচ্ছে স্কিন হোয়াইটেনিং এজেন্ট হিসেবে। Dermalogika Miracle 5x Whitening Cream with advanced formula তে আছে অ্যাকটিভ গ্লুটাথিওন। গ্লুটাথিওনে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি অক্সিডেন্ট আছে যা স্কিনের কোলাজেন প্রোডাকশন বাড়িয়ে স্কিনকে সেইফলি ব্রাইট করে এবং স্কিনের ইলাস্টিসিটি ধরে রাখতে হেল্প করে। গ্লুটাথিওন একটি সেইফ ব্রাইটেনিং অপশন যা খুব অল্প সময়ে ইফেক্টিভ রেজাল্ট দেয়৷

২) আলফা আরবুটিন

আমরা অনেকেই জানি আলফা আরবুটিন স্কিন লাইটেনিংয়ে বেশ হেল্পফুল। বিভিন্ন স্কিনকেয়ার প্রোডাক্টসে এই উপাদানটি এখন বেশ ব্যবহৃত হচ্ছে। আলফা আরবুটিন স্কিনের এক্সেস মেলানিন প্রোডাকশন কমিয়ে স্কিনটোন ব্রাইট করার সাথে সাথে যেকোনো ধরনের ডার্ক স্পট, হাইপারপিগমেন্টেশন কমাতে খুবই হেল্পফুল। এই ইনগ্রেডিয়েন্টটি স্কিনের আনইভেনটোন রিপেয়ারেও বেশ কার্যকরী।

৩) সোডিয়াম হায়ালুরোনেট

স্কিন লাইটেনিং তো হলো, এখন আরেকটি বিষয় ভুলে গেলে তো চলবে না। সেটা হলো স্কিন ময়েশ্চারাইজিং। Dermalogika Miracle 5x Whitening Cream with advanced formula শুধু স্কিন হোয়াইটেনিংয়ে ফোকাস করেছে তা না, এতে স্কিন ময়েশ্চারাইজিং এর জন্য আছে সোডিয়াম হায়ালুরোনেট। হায়ালুরোনিক অ্যাসিড থেকে সোডিয়াম হায়ালুরোনেট এক্সট্র্যাক্ট করা হয়। সোডিয়াম হায়ালুরোনেট স্কিনের এপিডার্মিস লেয়ারে পেনিট্রেট হয়ে স্কিনকে ডিপলি হাইড্রেটেড করে এবং রিংকেলস প্রিভেন্ট করে।

ডার্মালজিকা

প্যাকেজিং

এই ক্রিমটি ৫০ গ্রামের একটি জারে পাওয়া যায়। দেখতেই পাচ্ছেন বেশ সুন্দর এর প্যাকেজিং। ব্যাগেও ইজিলি ক্যারি করা যায়। প্রোডাক্টের কার্যকারিতা অনুযায়ী দামটাও ঠিকঠাক মনে হয়েছে। একটি জার ইজিলি ২ মাস ইউজ করতে পারবেন।

টেক্সচার ও স্মেল

এই ক্রিমটির টেক্সচার বেশ লাইট ওয়েট আর ওয়াটারি। ফেইসে অ্যাপ্লাই করার পর অয়েলিনেস বা গ্রিজিনেস দেখা যায় না। এর ফাস্ট অ্যাবজর্বিং ফর্মুলার জন্য স্কিনে খুব দ্রুত মিশে যায়৷ সেজন্য অয়েলি স্কিনের জন্যও এই ক্রিমটি পারফেক্ট। কড়া গন্ধ নেই, তাই আমার বেশ ভালো লেগেছে।

কারা ব্যবহার করতে পারবে?

এটা অল স্কিন টাইপে স্যুইটেবল। সেনসিটিভ স্কিনেও ইউজ করতে পারবেন, তবে আগে প্যাচ টেস্ট করে নিবেন। এতে যেহেতু অ্যাকটিভ ইনগ্রেডিয়েন্ট আছে, তাই বয়স ২০+ হলে ব্যবহার করতে পারেন।

ব্যবহারের নিয়ম

ক্লেনজার দিয়ে মুখ ধুয়ে Dermalogika Miracle 5x Whitening cream ফিংগারটিপসে পরিমাণমতো নিয়ে ফুল ফেইস ও নেক এরিয়াতে জেন্টলি অ্যাপ্লাই করতে হবে। বেস্ট রেজাল্ট পাওয়ার জন্য ডেইলি দুইবার সকালে ও রাতে ইউজ করুন। তবে দিনের বেলায় সানস্ক্রিন অবশ্যই ব্যবহার করতে হবে।

আমার অভিজ্ঞতা

স্কিন হোয়াইটেনিং

আমার স্কিন টাইপ কম্বিনেশন। আমি Dermalogika-র এই ক্রিম একমাস যাবত ব্যবহার করছি, তাতেই স্কিনে একটা চেঞ্জ দেখতে পারছি। আমার ফেইসে কিছু একনে স্পট ছিলো, সেগুলো কমে স্কিন বেশ ব্রাইট হয়েছে। সকালে ঘুম থেকে ওঠার পর যখন আয়না দেখি, মনটাই ভালো হয়ে যায় স্কিনের হেলদি গ্লো দেখে। আরেকটা কথা মেনশন করতে চাই, এই ক্রিমটি ডার্মাটোলজিক্যালি টেস্টেড। তাই এটা স্কিনের জন্য একদম সেইফ এবং এটা অ্যাপ্লাই করলে স্কিনে কোনো ইরিটেশন হয় না।

কেন এটি বাজারের অন্যান্য স্কিন হোয়াইটেনিং ক্রিম থেকে আলাদা?

নরমালি বাজারে যেসব রং ফর্সা করার ক্রিম পাওয়া যায় সেগুলো ৭-১০ দিনে স্কিন সাদা করে দিতে পারবে, এমন কমিটমেন্ট দেয়। রাতারাতি কয়েক শেইড ফর্সা করছে এগুলো, তার মানে কী পরিমাণে কেমিক্যাল আছে, ভাবতে পারেন? এগুলো যে স্কিনের মারাত্মক ক্ষতি করে, সেটা এখন আমরা কম বেশি সবাই জানি। কিন্তু Dermalogika Miracle 5x Whitening cream স্কিন হোয়াইটেনিং এর এই কনসেপ্টটাই চেঞ্জ করে দিয়েছে। এর ফর্মুলা জাস্ট অ্যামেজিং, আর এখন সেইফ ইনগ্রেডিয়েন্টস দিয়ে একদম নিরাপদে ফেয়ার স্কিনটোন পেতে পারেন! হ্যাঁ, রাতারাতি এটা আপনার ত্বক উজ্জ্বল করবে না, তবে কিছুদিন ব্যবহার করলেই আপনি ডিফারেন্স বুঝতে পারবেন।

 

তাহলে আজ এই পর্যন্তই। অনলাইনে অথেনটিক প্রোডাক্ট কিনতে পারেন শপ.সাজগোজ.কম থেকে অথবা সাজগোজের ৪টি শপ- যমুনা ফিউচার পার্ক, বেইলি রোডের ক্যাপিটাল সিরাজ সেন্টার, উত্তরার পদ্মনগর (জমজম টাওয়ারের বিপরীতে) ও সীমান্ত সম্ভার থেকেও বেছে নিতে পারেন আপনার পছন্দের প্রোডাক্টটি।

 

ছবি- সাজগোজ

 

 

16 I like it
1 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...