নিজেকে কতটা জানেন আপনি? - Shajgoj

নিজেকে কতটা জানেন আপনি?

IMG_0417

আচ্ছা আপনি নিজেকে কতটা জানেন? জানি আশেপাশের অনেক কিছু সম্পর্কেই আপনি অনেক খানিই জ্ঞাত। কিন্তু কথা হল আপনি এতকিছু যে জানেন ঠিক আছে কিন্তু নিজের সম্পর্কে আসলে কতখানি জানেন। নিজেকে কতটা চেনেন। আপনি আসলে কেমন তা সম্পর্কে আপনি জানেন তো?

আমি বলছি বলে তা নয়, আপনার নিজের জন্য নিজেকে জানাটা অনেক বেশি জরুরী। কথা হল নিজেকে কীভাবে জানবেন। নিজেকে জানার কিছু উপায় আছে যা আজ আমি আপনাদের সাথে শেয়ার করব।

[picture]

(১) প্রথমেই আপনার পছন্দ-অপছন্দের একটা লিস্ট করে ফেলুন। কারণ আপনার কি পছন্দ কি অপছন্দ তা জানাটা দরকার। আপনার কাছে কোন জিনিসটা বেশি গুরুত্বপূর্ণ কোনটা নয় সেটারও লিস্ট করুন।

(২) সময় অনেক গুরুত্বপূর্ণ। সুতরাং আপনার সেই মূল্যবান সময় আপনি কিসে ব্যয় করতে চান আর কিসে ব্যয় করতে চান না সেটাও অবশ্যই খুঁজে বের করুন।

(৩) আপনার আশেপাশের মানুষগুলোকে এবং সম্পর্কগুলোকে মূল্যায়ন করুন। আশেপাশের মানুষগুলো আসলে কেমন এবং আপনি তাদের নিয়ে কি ভাবছেন। আশেপাশের মানুষগুলোর সাথে আপনার সম্পর্ক আসলে কেমন? কোন সম্পর্কগুলো আপনার কাছে গুরুত্বপূর্ণ আর আসলেও সেই মানুষগুলোর কাছে এই সম্পর্ক সমান গুরুত্বপূর্ণ কিনা তাও বিবেচনা করুন।

(৪) নিজেকে জিজ্ঞেস করুন মানুষের কোন জিনিসটা আপনার কাছে অনেক বেশি বিরক্ত লাগে। এবং সাথে সাথে এটাও জানুন যে আপনার নিজের কোন জিনিসটা আপনার বিরক্ত লাগে।

(৫) সব মানুষের সবকিছু ভালো না লাগাটাই স্বাভাবিক। তাই বিরক্ত লাগার সাথে সাথে কোন ব্যাপারগুলো আপনার ভালো লাগে তা খুঁজে বের করুন। অবশ্যই নিজের ভালো লাগার জিনিসগুলোও খুঁজে বের করবেন। কারণ মনে রাখবেন আপনি মানুষকে তখনই ভালোবাসতে পারবেন যখন আপনি নিজেকে ভালোবাসবেন।

(৬) মানুষ আপনার সাথে ভালো কী কী করছে তা খুঁজে বের করুন যা আপনি করছেন না আসলে। আর হ্যা একই কাজ করার জন্য নয় বরং অন্যের ভালো কাজ থেকে ইনস্পিরিয়েশন নিন এজন্য যাতে করে আপনি চাইলে আরও অনেক ভালো কিছু করতে পারেন।

(৭) ভাবুন আসলে আপনি সবার আড়ালে কেমন? সবসময় সবাই সামনে থাকে না তখন আপনি আসলে কীভাবে কথা বলতে পছন্দ করেন, কেমন জামা-কাপড় পরতে ভালোবাসেন এবং কীভাবে থাকতে পছন্দ করেন। তাহলেই সবার সামনে থাকা আপনাকে আর আসলেই আপনি কেমন তা খুঁজে পাবেন।

(৮) আপনি আসলে কোন কোন বিষয়ে আগ্রহী তার একটা লিস্ট করে ফেলুন। শুধু লিস্ট করেই থেমে যাবেন না। সেগুলো করার চেষ্টা করুন। এতে করে দেখবেন আপনার না জানা অনেক ট্যালেন্ট আপনার সামনে চলে আসছে যা আপনি নিজেও জানতেন না।

(৯) মানুষ আপনাকে কীভাবে ট্রিট করছে তা বুঝার চেষ্টা করুন। তারা কি সবাই আপনাকে একইভাবে ট্রিট করছে? এই প্রশ্নের উত্তর আপনাকে বলে দিবে আপনার অনেক দুর্বলতার কথা। যেগুলো আসলে ঠিক করা দরকার।

নিজের ভালো লাগা, খারাপ লাগা, নিজে কী হতে চান, জীবনের লক্ষ্য এসব জেনে তা অনুযায়ী কাজ করা আরও নানা প্রশ্নের উত্তর পাবেন আপনি যখন নিজেকে জানবেন। জীবনের প্রতিটি পদক্ষেপেই নিজেকে জানার প্রয়োজনীয়তাটা অনেক বেশি। আমরা কখনো কখনো তা বুঝি কখনো বা নয়। তাই আগে নিজেকে জানুন।

নিজেকে জানার জন্য এই টিপসগুলো কাজে লাগাতে চেষ্টা করুন। মনে রাখবেন- “ আপনি কখনোই জানতে পারবেন না যদি চেষ্টা না করেন।“

লিখেছেন – আনিন্তা আফসানা

0 I like it
0 I don't like it
পরবর্তী পোস্ট লোড করা হচ্ছে...