বিউটি ব্লেন্ডার এবং বেইজ মেকাপ! ভুলগুলো শুধরে নিন   - Shajgoj বিউটি ব্লেন্ডার এবং বেইজ মেকাপ! ভুলগুলো শুধরে নিন   - Shajgoj

বিউটি ব্লেন্ডার এবং বেইজ মেকাপ! ভুলগুলো শুধরে নিন  

অগাস্ট ১, ২০১৭

নিখুঁত বেইজ মেকাপ পেতে হলে যেই টুলস টি না হলেই নয়, তা হলো বিউটি ব্লেন্ডার। বর্তমানে এটি বেশ সুপরিচিত।  বিউটি ব্লেন্ডার ব্যবহারের মাধ্যমেই ফ্ললেস এবং ন্যাচারাল লুকিং বেইজ মেকাপ পাওয়া সম্ভব। কিন্তু এর জন্যে জানতে হবে সঠিক নিয়ম এবং কিছু ট্রিকস।  আর আজকের টপিক সেটাই।  চলুন আর কথা না বাড়িয়ে, জেনে নেই।

১. অনেকেই ড্রাই বিউটি ব্লেন্ডার-টি নিয়েই ফাউন্ডেশন ব্লেন্ড করা শুরু করে দেয়। এটা একদমই ঠিক উপায় নয়। সব সময় বিউটি ব্লেন্ডার-টি পানিতে ভিজিয়ে নিয়ে এক্সট্রা পানি টুকু চিপে নিতে হবে। বিউটি ব্লেন্ডার ড্রাই অবস্থায় ব্যবহার করলে এটি অধিকাংশ ফাউন্ডেশন ই শুষে নেবে এবং ব্লেন্ডিংও ভালো হবে না। এছাড়াও খেয়াল রাখতে হবে বিউটি ব্লেন্ডারে যেন অতিরিক্ত পানি না থাকে। তবে  আপনার ব্লেন্ডিং ভালো হবে না এবং একটা প্যাচি লুক এনে দেবে।

২. একটা ভুল আমি অনেককেই করতে দেখেছি। তা হলো, বিউটি ব্লেন্ডারের উপর ফাউন্ডেশন ঢেলে নিয়ে এরপরে স্কিনে ব্যবহার করে।  এটি না করে, প্রথমে ফাউন্ডেশন নিয়ে হাতের উল্টো দিয়ে অল্প একটু ঢেলে নিন। এরপর আংগুলের সাহায্যে পুরো ফেস এ ডট ডট করে লাগিয়ে নিয়ে ভেজা স্পঞ্জ দিয়ে ব্লেন্ড করে নিন। তবেই আপনি পাবেন ফ্ললেস লুকিং বেইজ।

৩. ফাউন্ডেশন মুখে ডট ডট করে লাগানোর পর ফাউন্ডেশন ব্লেড করার সময় অনেকেই অতিরিক্ত প্রেশার দিয়ে ব্লেন্ড করে। এতে করে কিন্তু ফাউন্ডেশন সরে যাবার চান্স থাকে। বিউটি ব্লেন্ডার দিয়ে সবসময় জেন্টলি ব্লেন্ড করতে হবে। এমন ভাবে প্রেশার দিতে হবে, যাতে ব্লেন্ডারটি আপনারে স্কিনে বাউন্স করতে পারে। তবেই সফট এবং স্মুদ বেইজ পাওয়া যাবে।

৪. বিউটি ব্লেন্ডার দিয়ে ফাউন্ডেশন ব্লেন্ড করার একমাত্র নিয়ম হচ্ছে ড্যাবিং মোশন। ব্লেডারটি দিয়ে হালকা চেপে চেপে ব্লেন্ড করতে হবে। ঘষাঘষি করতে গেলে কিন্তু বেইজ পুরো নষ্ট হয়ে যাবে এবং স্কিনে ফাউন্ডেশন প্যাচি এবং আনইভেন দেখাবে।

৫. ভেজা বিউটি ব্লেন্ডার দিয়ে ব্লেন্ড করতে করতে অনেক সময় দেখা যায় ব্লেন্ডার-টি ড্রাই ফিল হচ্ছে। এই সময় কিন্তু আপনি সামান্য পানি বিউটি ব্লেন্ডারে স্প্রে করে নিতে পারেন অথবা নতুন করে ব্লেন্ডার-টি পানিতে ভিজিয়ে এক্সট্রা পানিটুকু চিপে আবার ব্যবহার করতে পারেন।

৬. অনেক সময় তাড়াহুড়ো করে মেকাপ করা হয়। কিন্তু মনে রাখতে হবে বিউটি ব্লেন্ডার কোনো ম্যাজিক্যাল টুলস না। তাই এটি দিয়ে ফ্ললেস মেকাপ পেতে কিন্তু সময় নিয়েই আপনাকে ব্লেন্ড করতে হবে।

৭. বিউটি ব্লেন্ডার দিয়ে কিন্তু শুধুমাত্র ফাউন্ডেশনই ব্লেন্ড করা যায় না। এটি দিয়ে কনসিলার , লুজ পাউডার , যেকোন ক্রিমি প্রোডাক্টই ব্লেড করা সম্ভব। তার জন্যে ভালো করে প্র্যাকটিস করে নেওয়াই ভালো।

৮. বিউটি ব্লেন্ডার দিয়ে তো সুন্দর ফ্ললেস বেইজ পেলেন। এবার কি সেটাকে ফেলেই রাখবেন? একদমই না। বিউটি ব্লেন্ডার না শুকানো পর্যন্ত আলো বাতাসেই রাখবেন। শুকিয়ে গেলে কোনো বক্স এ রাখবেন। ২ বার ব্যবহারের পর অবশ্যই ক্লিন করবেন।

এই তো ছিল, বেইজ মেকাপ এবং বিউটি ব্লেন্ডার নিয়ে কিছু কথা এবং ট্রিকস। আশা করছি আপনার ভুলগুলো ধরতে পেরেছেন।

ছবি – মেকাপঅ্যান্ডবিউটি ডট কম , স্টাইলক্রেজ ডট কম , পিন্টারেস্ট ডট কম

লিখেছেন – জান্নাতুল মৌ