নিজেই তৈরী করুন স্কিন ব্রাইটেনিং উপটান সোপ – Shajgoj



নিজেই তৈরী করুন স্কিন ব্রাইটেনিং উপটান সোপ


সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১৮



আমরা আমাদের মুখের ত্বকের যেমন যত্ন নেই, আমাদের বডি পার্ট-এর স্কিনের কি তেমনটা যত্ন নেয়া হয়? এই প্রশ্নটা যদি করা হয়, অনেকেই উত্তর দিবেন যে, বডির স্কিন কেয়ার খুব বেশী করা হয় না বা অত সময় কই কেয়ার করার! কিন্তু শাওয়ার-তো আমরা ডেইলি নেই। তাই না? তখন সোপ-ও ব্যবহার করা হয়। সেই সোপ ব্যবহারের সাথে সাথেই যদি বডির স্কিন কেয়ার নেয়া হয়ে যায়, তবে কেমন হয়?? দারুণ হয়। তাই না?

বডি পার্ট-এর স্কিন কেয়ার না নেওয়া, সান ট্যান ইত্যাদি কারণে বডি পার্ট-এর স্কিন অনেক বেশী ডাল এবং কালো হয়ে যায়। তাই, আজ আমি জানাবো এই সকল সমস্যার সমাধান। এজন্য, বানিয়ে নিতে পারেন স্কিন ব্রাইটেনিং উপটান সোপ। এটি স্কিন-কে ব্রাইট করে তোলে, সান ট্যান রিমুভ করে, স্কিনের ডেড সেলস দূর করে, স্কিনকে ময়েশ্চারাইজড রাখে।

তো চলুন আর কথা না বাড়িয়ে জেনে নেই, কিভাবে এই স্কিন ব্রাইটেনিং উপটান সোপ বানাবেন।

 

যা যা লাগবে-

১. মুলতানি মাটি: মুলতানি মাটি আমাদের স্কিন থেকে এক্সট্রা ডার্ট এবং অয়েল দূর করে। স্কিন ইনফেকশন দূর করতে সাহায্য করে এবং স্কিনকে ক্লিন এবং হেলদি করে তোলে।

২. বেসন: বেসন স্কিন-কে ব্রাইট করে তুলতে সাহায্য করে। সান ট্যান রিমুভ করে, স্কিনের ডেড সেলস দূর করতে সাহায্য করে এবং বডির স্কিন-এ হওয়া ব্রণ দূর করতে সাহায্য করে।

৩. চালের গুঁড়ো: চালের গুঁড়োতে অ্যান্টি-এজিং এবং অয়েল অ্যাবসরবিং প্রোপার্টিজ রয়েছে। এটি স্কিন-কে উজ্জ্বল করে তুলতে সাহায্য করে। স্কিন-কে স্ক্রাবিং করে ডেড সেলস দূর করতে হেল্প করে।

৪. হলুদ গুঁড়ো: হলুদে প্রচুর পরিমাণে রয়েছে অ্যান্টি-ব্যাক্টেরিয়াল, অ্যান্টিসেপ্টিক, অ্যান্টি-ইনফ্লামেটরি প্রপারটিজ যা স্কিন প্রবলেমস,  বিশেষ করে ব্রণ দূর করতে বেশ ভালো কাজ করে। তবে, স্কিন কেয়ার-এর জন্যে রান্না ঘরে গিয়ে হলুদের কৌটা থেকে হলুদ গুঁড়ো নিয়ে আবার ব্যবহার করতে যাবেন না যেন। সবসময়, হলুদ কেনার পর স্কিন কেয়ার-এর জন্যে ছোট একটি আলাদা কৌটায় হলুদ গুঁড়ো রাখবেন।

৫. কাঠবাদামের গুঁড়ো: কাঠবাদামের গুঁড়ো স্কিন থেকে ডেড সেলস রিমুভ করতে হেল্প করে। স্কিন-এর এক্সট্রা ড্রাইনেস দূর করে স্কিন-কে ময়েশ্চারাইজ করে।

৬. সোপ বেইজ অথবা গ্লিসারিন বেইজড যে কোনো ক্লিয়ার সোপ।

৭. আমন্ড অয়েল: আমন্ড অয়েল স্কিন-কে হেলদি এবং সফট রাখতে সাহায্য করে। এটি ইউভি ড্যামেজ থেকে স্কিন-কে রক্ষা করে। এছাড়া ফাইন লাইনস দূর করতে হেল্প করে।

৮. অ্যাসেনশিয়াল অয়েল: এখানে আপনি যে কোনো অ্যাসেনশিয়াল অয়েল ব্যবহার করতে পারেন। এতে স্কিন বেনিফিট-তো পাবেনই, এছাড়াও আপনার সোপ-এ সুন্দর স্মেল যোগ হবে। তবে এটি অপশনাল। না থাকলে বাদ দিতে পারেন।

৯. সোপ মোল্ড/ ছোট কাপকেক মোল্ড/ পরিষ্কার ছোট কাপ বা বাটি

যেভাবে এই স্কিন ব্রাইটেনিং উপটান সোপ তৈরী করবেন-

  • একটি বাটিতে ১ চা চামচ করে মুলতানি মাটি, বেসন, চালের গুঁড়ো, কাঠবাদামের গুঁড়ো নিয়ে নিন। এর মধ্যে হাফ চা চামচ হলুদ গুঁড়ো নিন। সব শুকনো উপকরণগুলো ভালোভাবে মিলিয়ে নিন।
  • এবার ৫০ গ্রাম সোপ বেইজ অথবা গ্লিসারিন বেইজড ক্লিয়ার সোপ নিন। এটাকে ছোট ছোট টুকরো করে কেটে নিন।
  • এবার ডাবল বয়লার-এ সোপ গলিয়ে নিতে হবে। এজন্য, চুলায় একটি হাড়িতে পানি ফুটিয়ে নিয়ে এর উপরে একটি হিটপ্রুফ বাটি বসিয়ে দিন। বাটিতে সোপ-এর টুকরোগুলো দিয়ে দিন। একটু পরেই দেখবেন সোপ গলে গিয়েছে।
  • এবার যে শুকনো উপকরণগুলো মিক্স করে রেখেছেন, সেগুলো গলানো সোপ-এর মধ্যে দিয়ে একটি চামচের সাহায্যে ভালোভাবে মিশিয়ে নিন।
  • এবার এর মধ্যে হাফ চা চামচ আমন্ড অয়েল এবং কয়েক ফোঁটা যে কোনো অ্যাসেনশিয়াল অয়েল মিশিয়ে দিন।
  • সবকিছু মেশানো হয়ে গেলে বাটিটা হাড়ির উপর থেকে নামিয়ে চটজলদি সোপ মোল্ড/ কাপকেক মোল্ড/ হিটপ্রুফ ছোট বাটি/ কাপে ঢেলে নিন।
  • এরপর ১ থেকে দেড় ঘণ্টা এটাকে রুম টেম্পারেচার-এ রেখে দিন। এরপর আনমোল্ড করে ফেলুন। ব্যস, আপনার হোমমেইড উপটান সোপ রেডি।

যেভাবে ব্যবহার করবেন-

এই উপটান সোপ-টা প্রতিদিন গোসলের সময় নরমাল সাবানের পরিবর্তে ব্যবহার করতে পারবেন। ব্যবহারের সময় স্কিন-এ হালকা ম্যাসাজ করে নিয়ে ধুয়ে ফেলবেন।

ব্যস, গোসলের পাশাপাশি  চটজলদি স্কিন কেয়ার-ও হয়ে যাবে। এক্সট্রা সময় দেয়ারও দরকার পড়বে না। আর বেনিফিট-টা নিজের চোখেই দেখে নিবেন।

 

লিখেছেন- জান্নাতুল মৌ

ছবি- পিন্টারেস্ট.কম