প্রসাধনী সম্পর্কে, সম্পাদকের পছন্দ, সোয়াচ(swatch)

হুদা বিউটির ৭টি গর্জিয়াস লিকুইড ম্যাট লিপস্টিক

“আপা নিয়ে যান, হুদা বিউটি লেটেস্ট লিকুইড লিপস্টিক ১০০/- টাকা মাত্র! দুইটা কিনলে ওনলি ১৮০/- টাকা!” আমি চমকে উঠে পেছনে ঘুরে তাকালাম। রাজলক্ষ্মী মার্কেটের কসমেটিক্সের দোকানের বিক্রেতাটি তখনো একভাবে আমাকে ডেকেই যাচ্ছে। আমি কৌতুহলবশতই ছেলেটাকে জিজ্ঞেস করলাম, “এইটা তো রেপ্লিকা তাই না?” বিক্রেতা ভদ্রলোক চওড়া হাসি দিয়ে বললেন, “আরে আপা অরিজিনাল জিনিসের চেয়ে ভালো বানিয়েছে, নিয়ে যান।“ বিক্রেতা শেইড-এর নামধাম ছাড়া লাল টাইপের একটা “হুদা বিউটি” খুলে আমার হাতের কবজিতে চট করে একটুখানি লাগিয়ে দিলেন। সেই দারুণ জিনিস তো আমি কিনিনি, কিন্তু ঐ বস্তুটি নারকেল তেল আর কিচেন টিস্যু দিয়ে অনেকক্ষণ ঘষাঘষি করে তারপর সাবান দিয়ে ধোয়ার পর আমার হাত থেকে গিয়েছে! সস্তার তিন অবস্থা! হুদা বিউটির রেপ্লিকা দিয়ে কিন্তু মার্কেট ছেয়ে গিয়েছে। এই অবস্থায় অনেক অনলাইন এবং অফলাইন বিক্রেতাও যখন বলেন যে তারা আসল হুদা বিউটি বিক্রি করছেন, বেশ কষ্ট হয় বিশ্বাস করতে।

যাই হোক, আমি হুদা বিউটির অরিজিনাল লিকুইড ম্যাট লিপস্টিক-গুলো ব্যবহার করেছি এবং করছি। এ যাবতকালে আমি যত রকমের লিকুইড ম্যাট লিপকালার ব্যবহার করেছি, তারমধ্যে হুদা বিউটি-টাই আমার কাছে বেস্ট মনে হয়েছে। আর এইটা বেস্ট বলেই কিন্তু এর এত রেপ্লিকা দিয়ে বাজার ভরা! আজকে আপনাদের জন্য হুদা বিউটির আমার সবচেয়ে প্রিয় ৭টি লিকুইড লিপস্টিকের সোয়াচ নিয়ে এসেছি, যেইগুলো আমার কালেকশনে তো আছেই, এবং শেষ হয়ে গেলে আমি অবশ্যই আবার কিনবো!

(১) চিয়ারলিডার (Cheerleader)

উজ্জ্বল লাল রঙ এর এই শেইড-টি ফর্সা এবং উজ্জ্বল শ্যামলা মেয়েদের জন্য একদম পারফেক্ট। ব্রিক রেড টোনের এই লিপস্টিক-টি আপনার চেহারার ডালনেস কাটিয়ে আপনাকে একদম ফ্রেশ আর চিয়ারফুল একটা লুক দিবে, that is for sure!

(২) হার্টব্রেকার (Heartbreaker)

এইটা আমার অন্যতম পছন্দের শেইড। ট্রু রেড বলতে আমরা যা বুঝি এইটা ঠিক এক্সাক্টলি ঐ কালারটাই! আমার যেদিন কোন কারণে মন বা শরীর খারাপ থাকে, আমি এই শেইড-টা ব্যবহার করি। মুহূর্তেই চেহারায় ফ্রেশ, এনার্জেটিক, আর ক্যামেরা রেডি একটা লুক নিয়ে আসে এই শেইড-টি। সব ধরণের গায়ের রঙেই এই শেইড-টি মানিয়ে যাবে।

(৩) আইকন (Icon)

টেরাকোটা ব্রাউন রঙের এই শেইড-টি জমকালো শাড়ি, রাতের দাওয়াত, এমন কি অফিসে যাওয়ার ফর্মাল জামাকাপড়ের সাথেও ভালো মানিয়ে যায়। যাদের গায়ের রঙ মাঝারি থেকে একটু চাপা ধাঁচের তাদের জন্য এই শেইডটি পারফেক্ট।

(৪) ফেমাস (Famous)

ডিপ ওয়াইন প্লাম শেইড-এর এই লিপকালারটি গাড় গোলাপি, মভ, পার্পল, জামরং, গাঢ় বেগুনী রঙের জামার সাথেও মিলিয়ে ঠোঁটে দিতে পারবেন। এই শেইড-টিও সব ধরণের গায়ের রঙের সাথে মানিয়ে যায়।

(৫) বম্বশেল (Bombshell)

এইটা আমার ভীষণ প্রিয় একটা ন্যুড শেইড। এবং আমি প্রায়ই অফিসে যাওয়ার সময় এই লিপকালারটাই ব্যবহার করি। অফিসে যাওয়ার জন্য আমার যে জামাগুলো আছে ওগুলো ম্যাক্সিমাম-ই কালো, ডিপ ব্লু এবং অন্যান্য গাঢ় রঙের। তো এইসব গাঢ় রঙের সাথে আমি সাধারণত চোখের উপরে নিচে কাজল দিয়ে সাথে এই লিপকালারটি ব্যবহার করি। এর পীচ টাইপের ন্যুড শেইড-টা আমার জ্বলে যাওয়া মোটামুটি ফর্সা স্কিনে মানিয়ে যায়। ফর্সা এবং উজ্জ্বল শ্যামলা মেয়েদেরকেও মানাবে এই শেইড-টা।

(৬) ট্রেন্ডসেটার (Trendsetter)

এইবার আসি আমার পছন্দের আরেকটি ন্যুড কালারে। এইটা একটি ব্রাউনিশ টাইপের ন্যুড একটা শেইড। একটু চাপা গায়ের রঙ যাদের, তাদেরকে এই ন্যুড শেইড-টি খুব সুন্দর মানিয়ে যাবে।

(৭) ট্রফি ওয়াইফ (Trophy Wife )

Last but not the least, এইবার আসি আমার আরেকটি ভীষণ পছন্দের রেগুলার অফিসে ব্যবহার করার লিপ কালারে। সেটা হলো এই শেইড-টি। ওয়ার্ম ডিউটি রোজ টোনের এই শেইড-টি প্রায় সব ধরণের গায়ের রঙের সাথেই মানিয়ে যাওয়ার কথা। আমার বেশ অনেকগুলো ড্রেসের সাথেও এই শেইড-টি আমি ঠোঁটে লাগিয়ে নিই।

হুদা বিউটি লিকুইড লিপস্টিক কেন ভালো লাগে?

  • এর হালকা টেক্সচারটা আমার পছন্দ। ঠোঁটে লাগালে ভার ভার লাগে না। একদম লাইটওয়েইট ফিল হয়।
  • লিকুইড ম্যাট লিপ কালার হলেও এটা ঠোঁটকে ওভারড্রাই করে ক্র‍্যাক করে ফেলে না।
  • সত্যিই লং লাস্টিং এবং ওয়েল পিগমেন্টেড। খাওয়া-দাওয়া করলেও নষ্ট হয় না। আর আমি যেহেতু চাকরীজীবী সেহেতু আমার ঠোঁটে দিনের একটা লম্বা সময় লিপস্টিক থাকে। সকালে দিয়ে বের হই, রাতে একবারে তুলি। সারাদিনে কিন্তু একবার ও টাচ আপ করতে হয় না!
  • এর হালকা সুইট স্মেলটাও আমার ভালো লাগে।
  • অ্যাপ্লিকেটর ওয়্যান্ডটা বেশ লম্বা, ফলে লিপকালার অ্যাপ্লাই করতে সুবিধে হয়।
  • হুদা বিউটি একমাত্র লিকুইড লিপকালারের ব্র‍্যান্ড যার অনেক অনেক এবং অনেক ন্যুড শেইড আছে। আপনি ফর্সা, শ্যামলা, কালো যে গায়ের রঙের অধিকারীই হন না কেন, আপনার গায়ের রঙের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ ন্যুড শেইড হুদা বিউটির রেইঞ্জে আপনি পেয়েই যাবেন!

এইবার আসি গুরুত্বপূর্ণ কথায়। এই হুদা বিউটি কিনতে হলে আপনি অবশ্যই অথেনটিক জায়গা থেকে কিনুন। হুদা বিউটির লিকুইড ম্যাট লিপকালারগুলো এক কথায় গর্জিয়াস! এবং স্কিন ফ্রেন্ডলি। আমি যমুনার ফিউচার পার্কের স্যাফায়ার থেকে কিনি, ওখানে অথেনটিক টা ২,৬৫০/- টাকায় পাওয়া যায়। আবার ইন্টারেস্টিংলি তার পাশের একটি দোকানেই এই হুদা বিউটির ই রেপ্লিকা বিক্রি হয় একদম সস্তায়, যেইটা ঠোঁটে দিলে আপনার মনে হবে যে ঠোঁটে চক মেখেছেন। আর অমন ৮-১০ ঘণ্টা করে রেপ্লিকা ঠোঁটে দিলে যে ঠোঁটের কি দশা হবে, সেটা কি আর নতুন করে বলার অপেক্ষা রাখে? কাজেই দরকার হলে বছরে একটা লিপস্টিক কিনুন, কিন্তু অরিজিনাল প্রোডাক্ট কিনুন। দিনের শেষে আপনার নিজের যত্ন কিন্তু আপনার নিজের কাছেই!

Stay Beautiful, Stay Gorgeous!

লিখেছেন – ফারহানা প্রীতি

Comments

comments

Recommended