চুলের যত্ন, ত্বকের যত্ন, সৌন্দর্য পরামর্শ

স্কিন আর হেয়ার কেয়ার রুটিনে যোগ করুন কফি

আমাকে যদি কেউ জিজ্ঞেস করে আমার ফেভারিট ড্রিংক কি? আমি চোখ বন্ধ করে উত্তর দিবো – কফি। সকালের এক মগ ধোঁয়া ওঠা কফি না খেলে আমার দিনই শুরু হয় না। কফির স্বাস্থ্য উপকারিতা সম্পর্কে তো আমরা জানিই, নিয়মিত কফি পানে হৃদরোগের ঝুঁকি কমে, টাইপ ২ ডায়াবেটিসের ঝুঁকি কমে, আর রিফ্রেশমেন্ট আর এনার্জেটিক ফীলিংস তো আছেই। কিন্তু আমরা কি সবাই জানি, কফি পান করা ছাড়া ও আর কি কি কাজে কফি ব্যবহার করা যায়? চলুন তাহলে দেখে নিই সৌন্দর্যচর্চায়, স্কিন আর হেয়ার কেয়ার রুটিনে কীভাবে আমরা কফি ব্যবহার করতে পারি।
 

(১) স্কিন গ্লোয়িং ফেইস মাস্ক 

খুব সহজলভ্য কিছু উপাদান দিয়ে এই মাস্ক তৈরি করা যায়। নিয়মিত ব্যবহার করলে স্কিন হবে শাইনি আর গ্লোয়িং।
এই মাস্ক বানাতে যা যা প্রয়োজন –

  • ২ চা চামচ কফি পাউডার
  • ২ চা চামচ কোকো পাউডার
  • ৩ চা চামচ ফুলক্রিম দুধ/টকদই
  • ১ চা চামচ মধু

সবকিছু একটি নন মেটালিক পাত্রে নিয়ে ভালোভাবে মিক্স করে মুখ আর গলায় হাতের সাহায্যে ভালোভাবে লাগিয়ে নিন। আধা ঘণ্টা পর ধুয়ে ফেলুন। এবার দেখুন তো স্কিন কত সফট, শাইনি আর ন্যাচারালি গ্লোয়িং দেখাচ্ছে।

coffee_scrub_recipe_2

(২) এক্সফলিয়েটিং ফেইস স্ক্রাব 

এক্সফলিয়েটিং ফেইস স্ক্রাব তৈরি করতে যা যা লাগবে –

  • ৩ চা চামচ কফি পাউডার
  • দেড় চা চামচ এক্সট্রা ভার্জিন কোকোনাট অয়েল/ এক্সট্রা ভার্জিন অলিভ অয়েল
  • ১ চা চামচ চিনি

সব কিছু একটি নন মেটালিক পাত্রে নিয়ে ভালোভাবে মিক্স করে মুখ আর গলায় হাতের সাহায্যে ভালোভাবে লাগিয়ে নিন। চাইলে হাত , পা , ঘাড়ে ও ব্যবহার করতে পারেন, সেক্ষেত্রে স্ক্রাব বানানোর সময় উপকরণের পরিমাণে একই অনুপাতে বাড়াতে হবে। লাগানো হয়ে গেলে ১০ মিনিট পর আস্তে আস্তে সার্কুলার মোশনে স্কিন ম্যাসাজ করতে শুরু করুন। আস্তে আস্তে এক্সফলিয়েট হবে। স্কিনের ডেড সেলসগুলো দূর হবে এবং রোদে পোড়া ভাব ও দূর হবে। ৫ মিনিট আস্তে আস্তে ম্যাসাজ করে তারপর পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

(৩) সেলুলাইট কমানোর স্ক্রাব

সেলুলাইট হল শরীরের এক ধরনের পিণ্ডময় চর্বি যা সাধারণত থাই, আপার আর্ম এবং হিপলাইনে দেখা যায় এবং এই সমস্যাটা নারীদের ক্ষেত্রেই বেশি হয়। সেলুলাইট দূর করতে বেশ কার্যকরী কফি স্ক্রাব বানাতে যা যা লাগবে –

  • ১ কাপ কফি পাউডার
  • ১ কাপ এক্সট্রা ভার্জিন কোকোনাট অয়েল
  •  আধা কাপ চিনি

সব কিছু একটি নন মেটালিক পাত্রে নিয়ে ভালোভাবে মিক্স করে নিন। গোসলের পর ভেজা ত্বকে দেহের যেসব অংশে সেলুলাইট আছে, সেসব অংশে ভালোভাবে লাগিয়ে নিন এবং প্রতিটি অংশ ২-৩ মিনিট ধরে সার্কুলার মোশনে ম্যাসাজ করুন, ক্লকওয়াইজ এবং অ্যান্টিক্লকওয়াইজ। তারপর কুসুম গরম পানি ব্যবহার করে ধুয়ে ফেলুন। প্রতিদিন ধৈর্য ধরে ব্যবহার করলে ধীরে ধীরে সুফল পাবেন।

coffee-scrub

(৪) ফুল বডি স্ক্রাব 
ত্বকের মৃত কোষ দূর করতে, রোদে পোড়া ভাব কমাতে আর ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে কফি দিয়ে তৈরি ফুল বডি স্ক্রাবের জুড়ি নেই। এই স্ক্রাব বানাতে যা যা লাগবে –

সবকিছু একটি নন মেটালিক পাত্রে নিয়ে ভালোভাবে মিক্স করে নিন। গোসলের সময় পুরো শরীরে মেখে ১০ মিনিট রেখে তারপর ধীরে ধীরে স্ক্রাব করুন। তারপর পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

(৫) শাইনি হেয়ার ট্রীটমেন্ট 

৫ চা চামচ কফি ৫০০ এম.এল. পানিতে ফুটিয়ে মোটামুটি ঠাণ্ডা করে নিন। এবার গোসল শেষে ভেজা চুলে ঐ কফিটা ঢেলে পুরো মাথার সব চুল ভিজিয়ে নিন। শাওয়ার ক্যাপ পরে ১০-১৫ মিনিট অপেক্ষা করুন। এবার পানি দিয়ে মাথা ধুয়ে নিন। ফ্যানের বাতাসে চুল শুকিয়ে নিন। এবারদেখুন তো, চুল শাইনি গ্লোয়িং দেখাচ্ছে কিনা?

(৬) ন্যাচারাল হেয়ার কালারিং এজেন্ট 

যারা ন্যাচারালি চুল রঙ করাতে চান চুলে কোন ক্ষতিকারক কেমিক্যাল ব্যবহার না করে, তাদের জন্য খুব ভালো একটি অপশন হলো কফি। বাটা মেহেদি বা বাজার থেকে কেনা গুঁড়ো মেহেদিতে কফি আর পরিমাণ মতো পানি মিক্স করে মাথার চুলে লাগিয়ে ১ ঘণ্টা পর পানি দিয়ে ধুয়ে চুল শুকিয়ে নিলে, চুলের কোন ক্ষতি করা ছাড়াই আপনি লাইট ব্রাউন কালারের চুল পেয়ে যাবেন।
 

আমি কফি দিয়ে তৈরি এসব মাস্কে সাধারণত নেসক্যাফে আর ম্যাককফি ব্যবহার করে থাকি। আর সেই সাথে স্কিন ক্যাফে -এর এক্সট্রা ভার্জিন কোকোনাট অয়েল আর এক্সট্রা ভার্জিন অলিভ অয়েল টাই বেশি প্রেফার করি, যেটা স্কিনকে ডীপলি নারিশ করে। এক্সট্রা ভার্জিন কোকোনাট এবং অলিভ অয়েল দেশের বেশ কিছু বড়বড় কসমেটিক্স শপ, ফার্মেসিসহ যমুনা ফিউচার পার্ক আর সীমান্ত স্কয়ারে অবস্থিত স্যাফায়ার এ পেয়ে যাবেন। অনলাইনে অর্ডার করে ও ঘরে বসে পেতে পারেন।
 

 Stay Beautiful, Stay Gorgeous.

 ছবি – লিভস্ট্রং ডট কম, স্তাইলিস্ট ডট কম, পিন্টারেস্ট ডট কম
 লিখেছেন – ফারহানা প্রীতি

Comments

comments

Recommended