নখের যত্ন ও সাজগোজ, সৌন্দর্য পরামর্শ

নখের যত্নে করণীয়

একটি সুন্দর হাতের সাথের মানানসই সুন্দর নখ না থাকলে চলে না। তবে শুধু নখ থাকলেই চলবে না, নখের পরিচর্যার প্রয়োজনও আছে। মনে রাখবেন, নখ ত্বকেরই অংশ। প্রেস্টন দ্বারা এটি গঠিত।নখ সুন্দর রাখার জন্য সঠিক যত্নও প্রয়োজন।

নখ ভাঙ্গা রোধ:

যাদের ঘন ঘন নখ ভেঙ্গে যায় তাদের উচিত নিয়মিত ক্যালসিয়ামযুক্ত খাবার খাওয়া।নখের ভিত্তি শক্ত করার জন্য নিচের প্যাকটি ব্যাবহার করতে পারেন।

  • একটি পাত্রে ২ চামচ লেবুর রস নিন।এর মধ্যে ৫ ফোটা অলিভ অয়েল ভালভাবে মিশ্রিত করুন।এবার এই মিশ্রণ নখে মাখিয়ে রাখুন ১ ঘণ্টা।
  • চায়ের কাপে ১ কাপ হাল্কা গরম পানিতে ২ চামচ লেবুর রস নিন। উক্ত মিস্রনে ১ মিনিট হাতের আঙ্গুল ডুবিয়ে রাখুন। তারপর হাল্কা গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।এভাবে আপনার নখের গোরা শক্ত হবে ।ফলে যখন তখন নখ ভেঙ্গে যাবে না।

ভাঙ্গা নখের যত্ন:

  • নখ খুব ঘন ঘন ভেঙ্গে যেতে শুরু করলে নিচের সতর্কতা অবলম্বন করুন।
  • নখ খুব বেশি বড় রাখবেন না ।যতটুকু বড় রাখা দরকার ততটুকু রাখুন।
  • অতিরিক্ত সাবান, নেইলপলিশ ব্যাবহার করবেন না।
  • নখে সাবান লাগিয়ে পরিস্কার করার প্রয়োজন পড়লে ব্যাবহারের পর পরি ভালো কোন কোম্পানির কোল্ড ক্রিম লাগিয়ে নিন।
  • প্রতি রাতে শোবার আগে ল্যাকটিক এসিড ও ইউরিয়াযুক্ত ক্রিম লাগিয়ে শুকিয়ে নিয়ে ঘুমাতে যাবেন।
  • মাসে অন্তত ২ বার হাল্কা গরম অলিভ অয়েলের মধ্যে ১৫ মিনিট আঙ্গুল ডুবিয়ে রাখুন।এছাড়া রাতে ঘুমাতে যাবার আগে নখে অলিভ অয়েল লাগাতে পারেন।
  • রিমুভার ব্যাবহারের পর অবশ্যই আঙ্গুল ও নখে অলিভ অয়েল লাগাবেন।
  • প্রচুর ক্যালসিয়াম ও প্রোটিন যুক্ত খাবার খাবেন।পারলে প্রতিদিন দুধ বা টক দই খাবেন।

হলুদ নখ:

  • খুব সুক্ষ নেইল বাফার নখের যত্নে ব্যাবহার করুন।
  • সপ্তাহে একবারের বেশি নেইল বাফার ব্যাবহার করবেন না।
  • একটি ছোট বাটিতে তাজা লেবুর রস নিয়ে ১০ মিনিট নখ ডুবিয়ে রাখুন।এতে নখের সতেজতা ফিরে আসবে।
  • নখের যত্নে ক্রিম ম্যাসাজ করতে পারেন প্রতিদিন ২ মিনিট ধরে।
  • নেইল পলিশ লাগানোর আগে বেইজ কোট করতে ভুলবেন না।

নখে সাদা দাগ:

কোন রকম ফাঙ্গাসের আক্রমনে নখে সাদা দাগ হতে পারে।এছাড়া নখের পাসের পাশের ত্বকে আক্রমনের কারণে সাদা সাগ হতে পারে। মাস খানেকের মধ্যে দাগ চলে না গেলে ত্বক বিশেষজ্ঞের শরণাপন্ন হতে হবে।

লিখেছেন- পাপিয়া সুলতানা

ছবি- গ্ল্যামারসইউ.ওয়ার্ডপ্রেস.কম

Recommended


Comments

comments

Leave a Comment

*