রান্নাবান্না

রেসিপিঃ কাঁকরোলের চপ, আলু স্টাফ ও রোস্টেড পটল

কাঁকরোলের চপঃ
উপকরনঃ মাঝারি আকারের কাঁকরোল ৪ টা, কাঁচা মরিচ ৫ টা, পোস্তদানা বাটা ৪ চা চামচ, লবঙ্গ ৩ টা, হলুদ গুঁড়ো সামান্য পরিমান, তেল পরিমান মত, আতপচালের গুঁড়ো ১ মুঠো, কর্নফ্লাওয়ার ২ চা চামচ, কালিজিরা সামান্য পরিমান, লবন স্বাদমত।
প্রণালীঃ কাকরোল দুভাগ করে কেটে নিন। তারপর ভাপিয়ে নিয়ে ভিতরের শাঁস বের করে নিন। এবার নারকেল, পোস্তদানা  বাটা, লবঙ্গ বাটা একসাথে মেখে নিন। এরপর এতে লবন, কাচাঁ মরিচ, হলুদ ও কালিজিরা ভাল ভাবে মেশান। কড়াইয়ে তেল গরম করতে দেন। তেল গরম হলে এই সব মিশ্রন এক সাথে নেড়েচেড়ে হালকা ভেজে নিন, তারপর এই মিশ্রন কাঁকরোলের ভিতরে ভরেদিন। আতপচালের গুঁড়ো ও কর্নফ্লাওয়ার ঠান্ডা পানি দিয়ে গুলিয়ে নিন। এবার কাঁকরোল গুলো এই মিশ্রনে ডুবিয়ে ভাজুন। গরম গরম সসের সাথে পরিবেশন করুন।

alu chop
আলু স্টাফঃ
উপকরনঃ আলু ৫টা, ছানা ১০০ গ্রাম, বাঁধাকপি কুচানো সামান্য পরিমান, কাঁচা মরিচ ৫ টা, হলুদ গুঁড়া সামান্য, জিরার গুঁড়া ১/২ চা চামচ, ধনে গুঁড়া ১/২ চা চামচ, লবঙ্গ গুঁড়া ১/২ চা চামচ, আদা বাটা ১ চা চামচ, লবন স্বাদমতো, আস্ত লবঙ্গ ৩-৪ টা, তেল পরিমান মত, টমেটো ৩ টা, কর্নফ্লাওয়ার ৫ টেবিল চামচ, টক দই ২ টেবিল চামচ, গরম গুঁড়া মশলা সামান্য।
প্রণালীঃ প্রথমে আলু খোসা সহ দু’ভাগ করে কেটে সিদ্ধ করে নিতে হবে। অন্য দিকে ছানা, লবন, হলুদ, কাচা মরিচ কুচি ও কালোজিড়া এক সাথে মেখে নিন। আলু ভাল করে সিদ্ধ হলে, সব অর্ধেক আলুর মধ্যে থেকে সামান্য আলু কেটে বের করে আনুন। এবার ওই ফাঁকা স্থানে ছানার মিশ্রন ভরুন। তারপর কর্নফ্লাওয়ারের গোলায় ডুবিয়ে আলু গুলো ভেজে তুলুন। এবার কড়াইয়ে তেল গরম হলে পাঁচফোড়ন ও লবঙ্গ দিয়ে ফোড়ন দিন, তারপর বাঁধাকপি দিয়ে নেড়েচেড়ে বাকি সব মশলা দিয়ে পানি দিন। ঝোল ঘন হলে আলু দিয়ে চুলার আঁচ কমিয়ে দিন। সবশেষে গরম মশলা দিয়ে নামিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন।

 rosted potol

রোস্টেড পটলঃ
উপকরনঃ বড় বড় পটল ৩ টা, পোস্তদানা ২০ গ্রাম, কাজু বাদাম ১০ গ্রাম, কিশমিশ ১০ গ্রাম, নারকেল ২ টেবিল চামচ, টমেটো সস ১ টেবিল চামচ, সয়া সস ১ চা-চামচ, তেল পরিমান মত, লবন স্বাদ মত, হলুদ সামান্য, কারিপাতা ৪-৫ টা, ধনেপাতা কুচি, কর্নফ্লাওয়ার ৪ টেবিল চামচ, গোটা সরিষা ফোড়নের জন্য।
প্রণালীঃ পটলের খোসা না ছাড়িয়ে এক দিকের মুখ কেটে ভিতরের শাঁস বের করে নিন। এবার নারকেলের পেষ্ট, পোস্তদানা  কাজু বাদাম, কিশমিশ বাঁটা একসাথে মেশান। তারপর তাতে লবন, হলুদ, কালোজিরা দিয়ে মেখে নিন। খালি পটলের ভিতরে এই মিশ্রণ ভরে ভেজে তুলুন। কড়াইয়ে তেল দিয়ে সরিষার ফোড়ন দিন। টমেটো সস, সয়া সস, লবন, হলুদ এবং ঠান্ডা পানিতে গোলানো কর্নফ্লাওয়ার দিয়ে নাড়তে থাকুন। ঝোল ঘন হয়ে এলে পটল গুলো ছেড়ে দিন। সব শেষে কারিপাতা ও ধনেপাতা দিয়ে নামিয়ে নিন। রোস্টেট পটল গরম ভাতের সাথে খাওয়ার মজাই আলাদা।

লিখেছেনঃ মেরী

Comments

comments

Recommended